ঢাকা ০৮:৪৪ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ২৩ জুন ২০২৪, ৯ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

কচুয়ায় খালের পাড়ে মিলল অটোচালক সাব্বিরের হাত-পা বাঁধা লাশ

চাঁদপুরের কচুয়ায় নিখোঁজের একদিন পর উপজেলার সেঙ্গুয়া খালের পাড় থেকে সাব্বির হোসেন (১৮) নামের এক অটোরিকশা-চালকের হাত-পা বাঁধা লাশ উদ্ধার করেছে থানা পুলিশ।

Model Hospital

বৃহস্পতিবার( ২৫ জানুয়ারী) দুপুরে পালাখাল-আলিয়ারা সড়কের উত্তর সেঙ্গুয়া খালের পাড়ে হাত পা বাঁধা অবস্থায় তার লাশ স্থানীয়রা দেখতে পায়।

সংবাদ পেয়ে থানা পুলিশ ও পিবিআইয়ের ক্রাইম সিন ঘটনাস্থলে পৌছে হাত পা বাঁধা অবস্থায় তার লাশ উদ্ধার করে। সাব্বির উপজেলার পালাখাল মডেল ইউনিয়নের ভূঁইয়ারা গ্রামে নানা জিলানীর বাড়িতে মা জাহানারা বেগমকে নিয়ে বসবাস করতো। গত বুধবার দুপুর থেকে সে নিখোঁজ ছিলো।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, সাব্বির পেশায় অটোরিকশা চালক ছিলেন।

গত বুধবার থেকে তার কোন খোঁজ-খবর না পেয়ে বৃহস্পতিবার সকালে কচুয়া থানায় একটি নিখোঁজ ডায়েরী করেন তার মা জানাহারা বেগম।

দুপুরের দিকে খবর আসে হাত পা বাঁধা অবস্থায় উত্তর সেঙ্গুয়া খালের পাড় লাশ পড়ে রয়েছে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে তার লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে।

সাব্বিরের মা জাহানারা বেগম জানান, আমি আমার ছেলেকে নিয়ে বাবার বাড়ি ভূঁইয়ারা গ্রামে বসবাস করি। আমার ছেলে ভাড়া চালিত অটোরিকশা চালক। সাব্বির বুধবার বাড়ি থেকে দুপুরের খাবার খেয়ে অটোরিকশা নিয়ে বের হয়ে আর বাড়ি ফিরে আসে নাই।

বিভিন্ন স্থানে খোঁজার পর তাকে না পেয়ে রাতেই থানায় অবহিত করা হয়।

বৃহস্পতিবার সকালে সাব্বিরের মা জাহানারা বেগম কচুয়া থানায় একটি নিখোঁজ ডায়েরী দায়ের করেন। পরে দুপুরের দিকে খবর পাই সেঙ্গুয়া খালের পাড় হাত পা বাঁধা অবস্থায় একটি লাশ পড়ে রয়েছে। ছুটে গিয়ে দেখি আমার ছেলে সাব্বিরের লাশ।

কচুয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোঃ মিজানুর রহমান বলেন, লাশ উদ্ধার করে চাঁদপুর সরকারি মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। প্রাথমিক ভাবে ধারণা করা হচ্ছে-দূর্বৃত্তরা চালককে হত্যার পর ব্যাটারিচালিত অটোরিকশাটি ছিনিয়ে নিয়ে গেছে।

এ ঘটনায় মামলা দায়েরর প্রস্তুতি চলছে। তদন্ত সাপেক্ষে প্রকৃত দোষীদের দ্রুত আইনের আওতায় আনা হবে।

ট্যাগস :
জনপ্রিয় সংবাদ

চাঁদপুরে মাদরাসাতু মুহাম্মদ সাঃ উদ্বোধন

কচুয়ায় খালের পাড়ে মিলল অটোচালক সাব্বিরের হাত-পা বাঁধা লাশ

আপডেট সময় : ১০:১১:৩২ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২৫ জানুয়ারী ২০২৪

চাঁদপুরের কচুয়ায় নিখোঁজের একদিন পর উপজেলার সেঙ্গুয়া খালের পাড় থেকে সাব্বির হোসেন (১৮) নামের এক অটোরিকশা-চালকের হাত-পা বাঁধা লাশ উদ্ধার করেছে থানা পুলিশ।

Model Hospital

বৃহস্পতিবার( ২৫ জানুয়ারী) দুপুরে পালাখাল-আলিয়ারা সড়কের উত্তর সেঙ্গুয়া খালের পাড়ে হাত পা বাঁধা অবস্থায় তার লাশ স্থানীয়রা দেখতে পায়।

সংবাদ পেয়ে থানা পুলিশ ও পিবিআইয়ের ক্রাইম সিন ঘটনাস্থলে পৌছে হাত পা বাঁধা অবস্থায় তার লাশ উদ্ধার করে। সাব্বির উপজেলার পালাখাল মডেল ইউনিয়নের ভূঁইয়ারা গ্রামে নানা জিলানীর বাড়িতে মা জাহানারা বেগমকে নিয়ে বসবাস করতো। গত বুধবার দুপুর থেকে সে নিখোঁজ ছিলো।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, সাব্বির পেশায় অটোরিকশা চালক ছিলেন।

গত বুধবার থেকে তার কোন খোঁজ-খবর না পেয়ে বৃহস্পতিবার সকালে কচুয়া থানায় একটি নিখোঁজ ডায়েরী করেন তার মা জানাহারা বেগম।

দুপুরের দিকে খবর আসে হাত পা বাঁধা অবস্থায় উত্তর সেঙ্গুয়া খালের পাড় লাশ পড়ে রয়েছে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে তার লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে।

সাব্বিরের মা জাহানারা বেগম জানান, আমি আমার ছেলেকে নিয়ে বাবার বাড়ি ভূঁইয়ারা গ্রামে বসবাস করি। আমার ছেলে ভাড়া চালিত অটোরিকশা চালক। সাব্বির বুধবার বাড়ি থেকে দুপুরের খাবার খেয়ে অটোরিকশা নিয়ে বের হয়ে আর বাড়ি ফিরে আসে নাই।

বিভিন্ন স্থানে খোঁজার পর তাকে না পেয়ে রাতেই থানায় অবহিত করা হয়।

বৃহস্পতিবার সকালে সাব্বিরের মা জাহানারা বেগম কচুয়া থানায় একটি নিখোঁজ ডায়েরী দায়ের করেন। পরে দুপুরের দিকে খবর পাই সেঙ্গুয়া খালের পাড় হাত পা বাঁধা অবস্থায় একটি লাশ পড়ে রয়েছে। ছুটে গিয়ে দেখি আমার ছেলে সাব্বিরের লাশ।

কচুয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোঃ মিজানুর রহমান বলেন, লাশ উদ্ধার করে চাঁদপুর সরকারি মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। প্রাথমিক ভাবে ধারণা করা হচ্ছে-দূর্বৃত্তরা চালককে হত্যার পর ব্যাটারিচালিত অটোরিকশাটি ছিনিয়ে নিয়ে গেছে।

এ ঘটনায় মামলা দায়েরর প্রস্তুতি চলছে। তদন্ত সাপেক্ষে প্রকৃত দোষীদের দ্রুত আইনের আওতায় আনা হবে।