ঢাকা ০৩:২৪ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৩০ মে ২০২৪, ১৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
উপজেলা পরিষদ নির্বাচন

চাঁদপুরে‌‌ গণমাধ্যমকে বৃদ্ধাঙ্গুলি দেখাল রিটার্নিং অফিসার

চাঁদপুর জেলার মতলব উত্তর ও দক্ষিণ উপজেলা পরিষদ নির্বাচন। ৬ষ্ঠ উপ‌জেলা প‌রিষদ নির্বাচ‌নের প্রথম ধা‌পে আজ বুধবার চাঁদপুরের এই দু‌টি উপ‌জেলায় ভোট গ্রহণ অনু‌ষ্ঠিত হ‌বে।

Model Hospital

জেলার অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ এই নির্বাচনে বরাবরের মতোই নিজের খামখেয়ালী আচরণ ও সাংবাদিকদের পেশাগত কাজে বাঁধা সৃষ্টি করতে বেশ কিছু গণমাধ্যমকে উদ্দ্যেশ্যপ্রণোদিতভাবে নির্বাচন পর্যবেক্ষণ কার্ড প্রদান করেননি জেলার নির্বাচন ও রিটার্নিং কর্মকর্তা মোহাম্মদ তোফায়েল হোসেন।

শুধু তাই নয়, মূলধারার বেশ কিছু প্রিন্ট ও অনলাইন মিডিয়ার সংবাদকর্মীদের সাথেও ঔদ্ধত্যপূর্ণ আচরণ প্রদর্শন করেছেন তিনি।

নির্বাচনের আগের দিন মঙ্গলবার (৭ মে) সাংবাদিকদের আবেদন হাতে জেলা কার্যালয়ে সকাল থেকে বসিয়ে রেখে নানা অজুহাতে ব্যস্ততা দেখিয়ে রাত ১১ টায় অফিসে এসে হাজির হন তোফায়েল। এরপর মেজাজ দেখিয়ে ঢালাওভাবে সাংবাদিক ও গণমাধ্যম সম্পর্কে বাজে মন্তব্য করে উপস্থিত সাংবাদিকদের হেনস্তা করে অফিস থেকে চলে যেতে বলেন।

এর আগে, বিভিন্ন সময়ে জেলার একাধিক উপজেলায় কর্মরত উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তাদের বিরুদ্ধে উঠে আসা নানা অনিয়ম নিয়ে তার সাথে কথা বলতে গেলে বেপরোয়া এই কর্মকর্তার খারাপ আচরণের চিত্র বিভিন্ন গণমাধ্যমসহ স্যাটেলাইট টেলিভিশনে প্রচার হয়।

বিষয়টি সম্পর্কে জানতে চাইলে তার মুঠোফোনে একাধিকবার যোগাযোগ করলেও তিনি ফোন ধরেননি

এছাড়াও, বিভিন্ন সময়ে তার অধীনে পরিচালিত নির্বাচনের মাঠে নামসর্বস্ব গণমাধ্যমকর্মীদেরকে ভুয়া কার্ড ছাপিয়ে নির্বাচন পর্যবেক্ষণ করার সুবিধা প্রদান করেন। বিভিন্ন সময়ে অনুষ্ঠিত নির্বাচনকে ঘিরে নিজস্ব ফায়দা লুটতে যত্রতত্র কার্ড বিলি করার বিষয়ে গণমাধ্যমগুলোতে সংবাদ প্রকাশ হওয়ার ঘটনা ঘটে।

বারবার এতো অনিয়ম আর স্বেচ্ছাচারিতার পরেও কোন খুঁটির জোরে এখনো বহাল এই কর্মকর্তা, এমন প্রশ্ন সর্বত্র!

পেশাদার সাংবাদিকরা বিষয়টিকে ন্যাক্কারজনক উল্লেখ করে বলেন, মুক্ত সাংবাদিকতাকে বাঁধাগ্রস্ত করতে উদ্দেশ্যপ্রণোদিতভাবে প্রতিনিয়ত এই কর্মকর্তা এমন ঘটনা ঘটিয়ে যাচ্ছেন। এতে করে সঠিক তথ্য জনগনের কাছে পৌঁছাতে বাঁধার সম্মুখীন হচ্ছে সংবাদ মাধ্যমগুলো।’

ট্যাগস :

উপজেলা পরিষদ নির্বাচন

চাঁদপুরে‌‌ গণমাধ্যমকে বৃদ্ধাঙ্গুলি দেখাল রিটার্নিং অফিসার

আপডেট সময় : ০৩:২১:৫৩ অপরাহ্ন, বুধবার, ৮ মে ২০২৪

চাঁদপুর জেলার মতলব উত্তর ও দক্ষিণ উপজেলা পরিষদ নির্বাচন। ৬ষ্ঠ উপ‌জেলা প‌রিষদ নির্বাচ‌নের প্রথম ধা‌পে আজ বুধবার চাঁদপুরের এই দু‌টি উপ‌জেলায় ভোট গ্রহণ অনু‌ষ্ঠিত হ‌বে।

Model Hospital

জেলার অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ এই নির্বাচনে বরাবরের মতোই নিজের খামখেয়ালী আচরণ ও সাংবাদিকদের পেশাগত কাজে বাঁধা সৃষ্টি করতে বেশ কিছু গণমাধ্যমকে উদ্দ্যেশ্যপ্রণোদিতভাবে নির্বাচন পর্যবেক্ষণ কার্ড প্রদান করেননি জেলার নির্বাচন ও রিটার্নিং কর্মকর্তা মোহাম্মদ তোফায়েল হোসেন।

শুধু তাই নয়, মূলধারার বেশ কিছু প্রিন্ট ও অনলাইন মিডিয়ার সংবাদকর্মীদের সাথেও ঔদ্ধত্যপূর্ণ আচরণ প্রদর্শন করেছেন তিনি।

নির্বাচনের আগের দিন মঙ্গলবার (৭ মে) সাংবাদিকদের আবেদন হাতে জেলা কার্যালয়ে সকাল থেকে বসিয়ে রেখে নানা অজুহাতে ব্যস্ততা দেখিয়ে রাত ১১ টায় অফিসে এসে হাজির হন তোফায়েল। এরপর মেজাজ দেখিয়ে ঢালাওভাবে সাংবাদিক ও গণমাধ্যম সম্পর্কে বাজে মন্তব্য করে উপস্থিত সাংবাদিকদের হেনস্তা করে অফিস থেকে চলে যেতে বলেন।

এর আগে, বিভিন্ন সময়ে জেলার একাধিক উপজেলায় কর্মরত উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তাদের বিরুদ্ধে উঠে আসা নানা অনিয়ম নিয়ে তার সাথে কথা বলতে গেলে বেপরোয়া এই কর্মকর্তার খারাপ আচরণের চিত্র বিভিন্ন গণমাধ্যমসহ স্যাটেলাইট টেলিভিশনে প্রচার হয়।

বিষয়টি সম্পর্কে জানতে চাইলে তার মুঠোফোনে একাধিকবার যোগাযোগ করলেও তিনি ফোন ধরেননি

এছাড়াও, বিভিন্ন সময়ে তার অধীনে পরিচালিত নির্বাচনের মাঠে নামসর্বস্ব গণমাধ্যমকর্মীদেরকে ভুয়া কার্ড ছাপিয়ে নির্বাচন পর্যবেক্ষণ করার সুবিধা প্রদান করেন। বিভিন্ন সময়ে অনুষ্ঠিত নির্বাচনকে ঘিরে নিজস্ব ফায়দা লুটতে যত্রতত্র কার্ড বিলি করার বিষয়ে গণমাধ্যমগুলোতে সংবাদ প্রকাশ হওয়ার ঘটনা ঘটে।

বারবার এতো অনিয়ম আর স্বেচ্ছাচারিতার পরেও কোন খুঁটির জোরে এখনো বহাল এই কর্মকর্তা, এমন প্রশ্ন সর্বত্র!

পেশাদার সাংবাদিকরা বিষয়টিকে ন্যাক্কারজনক উল্লেখ করে বলেন, মুক্ত সাংবাদিকতাকে বাঁধাগ্রস্ত করতে উদ্দেশ্যপ্রণোদিতভাবে প্রতিনিয়ত এই কর্মকর্তা এমন ঘটনা ঘটিয়ে যাচ্ছেন। এতে করে সঠিক তথ্য জনগনের কাছে পৌঁছাতে বাঁধার সম্মুখীন হচ্ছে সংবাদ মাধ্যমগুলো।’