ঢাকা ১১:৩৫ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২৯ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১৭ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

হাইমচরে আওয়ামী লীগ নেতার উপর হামলা; জেলা কমিটির তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ

হাইমচর প্রতিনিধি : হাইমচর উপজেলার সাবেক ছাত্রলীগের আহ্বায়ক, সভাপতি সাধারণ সম্পাদক ও জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাবেক সদস্য ফখরুদ্দিন আলী আহমেদকে কুপিয়ে হত্যার চেষ্টা করায় তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছে চাঁদপুর জেলা আওয়ামীলীগ।
গত ১ মে জেলা আওয়ামীলীগ সভাপতি নাছির আহমেদ ভূইয়া ও সাধারণ সম্পাদক আবু নঈম দুলাল পাটোয়ারীর স্বাক্ষরিত প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ হামলার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানানো হয়।
প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে জেলা আওয়ামীলীগ সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক আবু নঈম পাটোয়ারী দুলাল বলেন, মেঘনা নদীতে অবৈধ ভাবে বালু উত্তোলন বন্ধ করতে এবং চাঁদপুর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ব বিদ্যালয়েরর জমি অধিগ্রহনে বিতর্ক, হাইমচরে সরকারি জমি নিজ নামে রেজিষ্ট্রশন করার বিষয় নিয়ে সরকারের প্রতিনিধি হিসেবে যাদের বিরুদ্ধে আদালতে মামলা করেছেন তারা আদালতে এর জবাব দিবে।
সরকার যাদের অপকর্মের বিরুদ্ধে মামলা করেছে তারা আইনি ভাবে মোকাবিলা না করে নিবেদিত আওয়ামীলীগ নেতার উপর হামলা করে আবারও প্রমান করলো তাদের অন্যায় অনিয়মের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ করলে হামলার স্বীকার হবে।  দলের দীর্ঘদিনের পরীক্ষিত নিবেদিত একজন আওয়ামীলীগ নেতার উপর নগ্ন হামলা করা হয়েছে। যা জেলা আওয়ামীলীগ কোন ভাবেই মেনে নিবে না। বঙ্গবন্ধু কন্যা দূর্নীতির বিরুদ্ধে জিরো টলারেন্স নীতিতে কাজ করে চলেছেন। তাই আমরা চাঁদপুরের মাটিতে কারো কোন অনিয়ম দূর্নীতি মেনে নিতে পারি না।
বাংলাদেশ আওয়ামীলী কারো অপরাধের দায়ভার কখনো নেয়নি আর নিবেও না। যারা একজন আওয়ামীলীগ নেতার উপর এমন ন্যাক্কারজন হামলা করেছে তারা দল এবং সরকারের ভাল চায় না। তারা নিজেদের অর্থ রক্ষায় চাঁদপুরকে গিলে খাচ্ছে। আওয়ামীলীগ নেতা ফখরুদ্দিন আলি আহমেদের উপর নগ্ন হামলায় জড়িতদের বিষয়ে দলের হাইকমান্ডকে অবহিত করা হয়েছে। যারা নিজ স্বার্থ হাসিল করতে দলের নেতা কর্মীদের উপর এধরনের হামলা করে তারা দলের জন্য বিষফোড়া।
আমরা তাদের বিরুদ্ধে সাংগঠনিক ব্যবস্থা গ্রহন করতে দলের হাইকমান্ডকে অবহিত করেছি। যারা নিজ স্বার্থ হাসিল করতে শান্ত চাঁদপুর শহরকে উত্তপ্ত ও অশান্ত করার প্রচেষ্টায় চালিয়ে যাচ্ছে এবং ফখরুদ্দিন আলী আহমেদের উপর হামলাকারিদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহন করতে প্রশাসনের দৃষ্টি আকর্শন করেছে জেলা আওয়ামীলীগ নেতৃবৃন্দ।
উল্লেখ্য, হাইমচরে সরকারি জমি নিজ নামে রেজিষ্ট্রশন করে নেয়ায় জেলা প্রশাসক অঞ্জনা খাঁন মজলিশ গত ২৮ এপ্রিল চাঁদপুর সদর আদালতে মামলা দায়ের করলে ফখরুদ্দিন আলী আহমেদ অভিনন্দন জানান। এ কারনে তাকে চাঁদপুর শহরে জোড় পুকুর পাড় একা পেয়ে মেরে পেলার উদ্দেশ্যে হামলা করে। অতএব, অসাংগঠনিক কর্মকান্ড থেকে দয়া করে বিরত থাকুন। দলের চেইন অব কমান্ড মেনে চলুন, দলকে সুসংগঠিত করুন। অন্যথায় সাংগঠনিক  ব্যবস্থা ও আইনগত ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে, প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে জানান জেলা আওয়ামীলীগ সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক।
ট্যাগস :
জনপ্রিয় সংবাদ

ক্রাইম এ্যাকশন ২৪ ডট কমের ৬ বছর পূর্তি আলোচনা সভা ও কেক কাটা

হাইমচরে আওয়ামী লীগ নেতার উপর হামলা; জেলা কমিটির তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ

আপডেট সময় : ১২:৪৭:৩৭ অপরাহ্ন, বুধবার, ৪ মে ২০২২
হাইমচর প্রতিনিধি : হাইমচর উপজেলার সাবেক ছাত্রলীগের আহ্বায়ক, সভাপতি সাধারণ সম্পাদক ও জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাবেক সদস্য ফখরুদ্দিন আলী আহমেদকে কুপিয়ে হত্যার চেষ্টা করায় তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছে চাঁদপুর জেলা আওয়ামীলীগ।
গত ১ মে জেলা আওয়ামীলীগ সভাপতি নাছির আহমেদ ভূইয়া ও সাধারণ সম্পাদক আবু নঈম দুলাল পাটোয়ারীর স্বাক্ষরিত প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ হামলার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানানো হয়।
প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে জেলা আওয়ামীলীগ সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক আবু নঈম পাটোয়ারী দুলাল বলেন, মেঘনা নদীতে অবৈধ ভাবে বালু উত্তোলন বন্ধ করতে এবং চাঁদপুর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ব বিদ্যালয়েরর জমি অধিগ্রহনে বিতর্ক, হাইমচরে সরকারি জমি নিজ নামে রেজিষ্ট্রশন করার বিষয় নিয়ে সরকারের প্রতিনিধি হিসেবে যাদের বিরুদ্ধে আদালতে মামলা করেছেন তারা আদালতে এর জবাব দিবে।
সরকার যাদের অপকর্মের বিরুদ্ধে মামলা করেছে তারা আইনি ভাবে মোকাবিলা না করে নিবেদিত আওয়ামীলীগ নেতার উপর হামলা করে আবারও প্রমান করলো তাদের অন্যায় অনিয়মের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ করলে হামলার স্বীকার হবে।  দলের দীর্ঘদিনের পরীক্ষিত নিবেদিত একজন আওয়ামীলীগ নেতার উপর নগ্ন হামলা করা হয়েছে। যা জেলা আওয়ামীলীগ কোন ভাবেই মেনে নিবে না। বঙ্গবন্ধু কন্যা দূর্নীতির বিরুদ্ধে জিরো টলারেন্স নীতিতে কাজ করে চলেছেন। তাই আমরা চাঁদপুরের মাটিতে কারো কোন অনিয়ম দূর্নীতি মেনে নিতে পারি না।
বাংলাদেশ আওয়ামীলী কারো অপরাধের দায়ভার কখনো নেয়নি আর নিবেও না। যারা একজন আওয়ামীলীগ নেতার উপর এমন ন্যাক্কারজন হামলা করেছে তারা দল এবং সরকারের ভাল চায় না। তারা নিজেদের অর্থ রক্ষায় চাঁদপুরকে গিলে খাচ্ছে। আওয়ামীলীগ নেতা ফখরুদ্দিন আলি আহমেদের উপর নগ্ন হামলায় জড়িতদের বিষয়ে দলের হাইকমান্ডকে অবহিত করা হয়েছে। যারা নিজ স্বার্থ হাসিল করতে দলের নেতা কর্মীদের উপর এধরনের হামলা করে তারা দলের জন্য বিষফোড়া।
আমরা তাদের বিরুদ্ধে সাংগঠনিক ব্যবস্থা গ্রহন করতে দলের হাইকমান্ডকে অবহিত করেছি। যারা নিজ স্বার্থ হাসিল করতে শান্ত চাঁদপুর শহরকে উত্তপ্ত ও অশান্ত করার প্রচেষ্টায় চালিয়ে যাচ্ছে এবং ফখরুদ্দিন আলী আহমেদের উপর হামলাকারিদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহন করতে প্রশাসনের দৃষ্টি আকর্শন করেছে জেলা আওয়ামীলীগ নেতৃবৃন্দ।
উল্লেখ্য, হাইমচরে সরকারি জমি নিজ নামে রেজিষ্ট্রশন করে নেয়ায় জেলা প্রশাসক অঞ্জনা খাঁন মজলিশ গত ২৮ এপ্রিল চাঁদপুর সদর আদালতে মামলা দায়ের করলে ফখরুদ্দিন আলী আহমেদ অভিনন্দন জানান। এ কারনে তাকে চাঁদপুর শহরে জোড় পুকুর পাড় একা পেয়ে মেরে পেলার উদ্দেশ্যে হামলা করে। অতএব, অসাংগঠনিক কর্মকান্ড থেকে দয়া করে বিরত থাকুন। দলের চেইন অব কমান্ড মেনে চলুন, দলকে সুসংগঠিত করুন। অন্যথায় সাংগঠনিক  ব্যবস্থা ও আইনগত ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে, প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে জানান জেলা আওয়ামীলীগ সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক।