ঢাকা ০৭:০৬ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১৫ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

হাইমচরে এসএসসি-সমমানেতে পাসের হার ৯১% , এ প্লাস ৭১

মোঃ সাজ্জাদ হোসেন রনি : হাইমচরে ১২টি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের ৭৭৮ জন শিক্ষার্থী কুমিল্লা শিক্ষা বোর্ডের অধীনে এসএসসি-সমমান পরীক্ষায় অংশগ্রহন করে ৭০৮ জন শিক্ষার্থী পাস করেছেন। পাশের হার হয়েছে ৯১%। জিপিএ -৫ পেয়েছেন ৭১ জন।
১০টি মাদ্রাসার ৩৪৬জন শিক্ষার্থী পরীক্ষায় অংশগ্রহন করে পাস করেছেন ৩১১জন। পাসের হার হয়েছে ৯৬.৪০%। জিপিএ-৫ পেয়েছেন ৫জন।
আলআমিন মহিলা দাখিল মাদরাসার ও কাটাখালি হামিদিয়া মাদরাসা শতভাগ শিক্ষার্থী পাস করেছে।
হাইমচর উপজেলার বাজাপ্তী রমনী মহন উবির ১০৩ জন শিক্ষার্থী এসএসসি পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করে কৃতকার্য হয়েছে ৮৯ জন। পাসের হার ৮৬.৪%। জিপিএ -৫ পেয়েছেন ৯জন। চরভৈরবী উচ্চ বিদ্যালয়ে ২৮ জন শিক্ষার্থী পরীক্ষায় অংশগ্রহন করে কৃতকার্য হয়েছে ২৫জন। পাসের হার ৮৯.২%।
চরভাঙ্গা উচ্চ বিদ্যালয়ে ৮৯ জন পরীক্ষার্থী অংশগ্রহন করে কৃতকার্য হয়েছেন ৭৮ জন। পাশের হার ৮৭%। জিপিএ-৫ পেয়েছে ৭জন। দূর্গাপুর উচ্চ বিদ্যালয়ে ৯৪জন শিক্ষার্থী পরীক্ষায় অংশগ্রহন করে পাস করেছেন ৮৭জন। পাসের হার ৯২.৫%। জিপিএ-৫ পেয়েছেন ১৬জন। ঈশানবালা এমজেএস উচ্চ বিদ্যালয়ে ৩২জন শিক্ষার্থী পরীক্ষায় অংশগ্রহন করে পাস করেছেন ২৮জন। পাসের হার ৮৭.৫%।
গন্ডামারা উচ্চ বিদ্যালয়ে ৯২জন পরীক্ষার্থী অংশগ্রহন করে ৭৬জন কৃতকার্য হয়েছেন। পাসের হার ৮২.৬%। জিপিএ -৫ পেয়েছেন। হাইমচর সরকারি বালক উচ্চ বিদ্যালয়ে ৪৩জন শিক্ষার্থী পরীক্ষায় অংশগ্রহন করে ৪২ জন পাস করেছেন। পাসের হার ৯৭.৬%। জিপিএ -৫ পেয়েছেন ২জন।
বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ে ৬৩ জন পরীক্ষায় অংশগ্রহন করে ৬০জন কৃতকার্য হয়েছেন। পাসের হার ৯৯.২%।  জিপিএ-৫ পেয়েছেন ৯ জন। কেভিএন উচ্চবিদ্যালয়ে ৯২জন পরীক্ষায় অংশগ্রহন করে পাস করেন ৮৮ জন। পাসের হার ৯৫.৬%। জিপিএ-৫ পেয়েছেন ৩জন। এমজেএস বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ে ৪৩জন শিক্ষার্থী পরীক্ষায় অংশগ্রহন করে ৪২জন কৃতকার্য হয়েছেন। পাসের হার ৯৭.৬%।
জিপিএ-৫ পেয়েছেন ৮জন। মোয়াজ্জেম হোসেন বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ে ২১জন শিক্ষার্থী পরীক্ষায় অংশগ্রহন করে পাস করেছেন ২০জন। পাসের হার ৯৫.২%। নীলকমল ওচমানিয়া উচ্চ বিদ্যালয় ১২৯জন পরীক্ষায় অংশগ্রহন করে পাস করেছেন ১২৩জন। পাসের হার ৯৫.৩%। জিপিএ-৫ পেয়েছেন ১৩জন। হাইমচর আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয় ১০ জন পরীক্ষায় অংশগ্রহন করে পাস করেছেন ৮ জন। পাশের হার ৮০%।
ফারুক-ই-আজম (রাঃ) আদর্শ দাখিল মাদ্রাসার ২০ জন শিক্ষার্থীর মধ্যে ১৯ জন পাস করেছে। পাসের হার ৯৫%। গাউছুল আজম ছবরিয়া দাখিল মাদ্রাসার ৩১শিক্ষার্থী অংশগ্রহন করে পাস করেছে ২৮ জন। পাসের হার ৯০.৩%  চরভাঙ্গা ডিএস দাখিল মাদ্রাসায় ৩৩ শিক্ষার্থীর ৩০ জন পাস করেছে। পাসের হার ৯০.৯%।
চরভৈরবী আজিজিয়া আজহারুল উলুম দাখিল মাদ্রাসার ২৫ শিক্ষার্থীর মধ্যে ২৩জন পাস করেছেন। পাসের হার ৯০.৯% জামিলায়ে মহিলা দাখিল মাদ্রাসার ২৩ শিক্ষার্থীর মধ্যে ১৯ জন পাস করেছে। পাসের হার ৮২.৬%। আল-আমিন আদর্শ মহিলা দাখিল মাদ্রাসা শতভাগ শিক্ষার্থী পাস করেছে। গন্ডামারা এবিএস ফাযিল মাদ্রাসার ৮০ শিক্ষার্থীর মধ্যে পাস করেছে ৬৮ জন। জিপিএ-৫ পেয়েছে ৩ জন।
আলগীবাজার আলিম মাদ্রাসায় ৪৭শিক্ষার্থী পরিক্ষায় অংশগ্রহন করে ৪৪ জন পাস করেছে। পাসের হার ৯৩.৬%। কাটাখালি হমিদিয়া মাদরাসা ২৬জন পরীক্ষার্থীর মধ্যে পাস করেছেন ২৬ জন। পাসের হার ১০০%। কমলাপুর দাখিল মাদরাসা ৩৪ জন পরীক্ষার্থীর মধ্যে পাস করেছেন ২৯জন। পাসের হার ৮৫.২%।
ট্যাগস :
জনপ্রিয় সংবাদ

ক্যাব চাঁদপুরের আয়োজনে বাজার পরিস্থিতি ও নিরাপদ খাদ্য বিষয়ক মত বিনিময় সভা

হাইমচরে এসএসসি-সমমানেতে পাসের হার ৯১% , এ প্লাস ৭১

আপডেট সময় : ০৩:১১:৩৯ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৯ নভেম্বর ২০২২
মোঃ সাজ্জাদ হোসেন রনি : হাইমচরে ১২টি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের ৭৭৮ জন শিক্ষার্থী কুমিল্লা শিক্ষা বোর্ডের অধীনে এসএসসি-সমমান পরীক্ষায় অংশগ্রহন করে ৭০৮ জন শিক্ষার্থী পাস করেছেন। পাশের হার হয়েছে ৯১%। জিপিএ -৫ পেয়েছেন ৭১ জন।
১০টি মাদ্রাসার ৩৪৬জন শিক্ষার্থী পরীক্ষায় অংশগ্রহন করে পাস করেছেন ৩১১জন। পাসের হার হয়েছে ৯৬.৪০%। জিপিএ-৫ পেয়েছেন ৫জন।
আলআমিন মহিলা দাখিল মাদরাসার ও কাটাখালি হামিদিয়া মাদরাসা শতভাগ শিক্ষার্থী পাস করেছে।
হাইমচর উপজেলার বাজাপ্তী রমনী মহন উবির ১০৩ জন শিক্ষার্থী এসএসসি পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করে কৃতকার্য হয়েছে ৮৯ জন। পাসের হার ৮৬.৪%। জিপিএ -৫ পেয়েছেন ৯জন। চরভৈরবী উচ্চ বিদ্যালয়ে ২৮ জন শিক্ষার্থী পরীক্ষায় অংশগ্রহন করে কৃতকার্য হয়েছে ২৫জন। পাসের হার ৮৯.২%।
চরভাঙ্গা উচ্চ বিদ্যালয়ে ৮৯ জন পরীক্ষার্থী অংশগ্রহন করে কৃতকার্য হয়েছেন ৭৮ জন। পাশের হার ৮৭%। জিপিএ-৫ পেয়েছে ৭জন। দূর্গাপুর উচ্চ বিদ্যালয়ে ৯৪জন শিক্ষার্থী পরীক্ষায় অংশগ্রহন করে পাস করেছেন ৮৭জন। পাসের হার ৯২.৫%। জিপিএ-৫ পেয়েছেন ১৬জন। ঈশানবালা এমজেএস উচ্চ বিদ্যালয়ে ৩২জন শিক্ষার্থী পরীক্ষায় অংশগ্রহন করে পাস করেছেন ২৮জন। পাসের হার ৮৭.৫%।
গন্ডামারা উচ্চ বিদ্যালয়ে ৯২জন পরীক্ষার্থী অংশগ্রহন করে ৭৬জন কৃতকার্য হয়েছেন। পাসের হার ৮২.৬%। জিপিএ -৫ পেয়েছেন। হাইমচর সরকারি বালক উচ্চ বিদ্যালয়ে ৪৩জন শিক্ষার্থী পরীক্ষায় অংশগ্রহন করে ৪২ জন পাস করেছেন। পাসের হার ৯৭.৬%। জিপিএ -৫ পেয়েছেন ২জন।
বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ে ৬৩ জন পরীক্ষায় অংশগ্রহন করে ৬০জন কৃতকার্য হয়েছেন। পাসের হার ৯৯.২%।  জিপিএ-৫ পেয়েছেন ৯ জন। কেভিএন উচ্চবিদ্যালয়ে ৯২জন পরীক্ষায় অংশগ্রহন করে পাস করেন ৮৮ জন। পাসের হার ৯৫.৬%। জিপিএ-৫ পেয়েছেন ৩জন। এমজেএস বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ে ৪৩জন শিক্ষার্থী পরীক্ষায় অংশগ্রহন করে ৪২জন কৃতকার্য হয়েছেন। পাসের হার ৯৭.৬%।
জিপিএ-৫ পেয়েছেন ৮জন। মোয়াজ্জেম হোসেন বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ে ২১জন শিক্ষার্থী পরীক্ষায় অংশগ্রহন করে পাস করেছেন ২০জন। পাসের হার ৯৫.২%। নীলকমল ওচমানিয়া উচ্চ বিদ্যালয় ১২৯জন পরীক্ষায় অংশগ্রহন করে পাস করেছেন ১২৩জন। পাসের হার ৯৫.৩%। জিপিএ-৫ পেয়েছেন ১৩জন। হাইমচর আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয় ১০ জন পরীক্ষায় অংশগ্রহন করে পাস করেছেন ৮ জন। পাশের হার ৮০%।
ফারুক-ই-আজম (রাঃ) আদর্শ দাখিল মাদ্রাসার ২০ জন শিক্ষার্থীর মধ্যে ১৯ জন পাস করেছে। পাসের হার ৯৫%। গাউছুল আজম ছবরিয়া দাখিল মাদ্রাসার ৩১শিক্ষার্থী অংশগ্রহন করে পাস করেছে ২৮ জন। পাসের হার ৯০.৩%  চরভাঙ্গা ডিএস দাখিল মাদ্রাসায় ৩৩ শিক্ষার্থীর ৩০ জন পাস করেছে। পাসের হার ৯০.৯%।
চরভৈরবী আজিজিয়া আজহারুল উলুম দাখিল মাদ্রাসার ২৫ শিক্ষার্থীর মধ্যে ২৩জন পাস করেছেন। পাসের হার ৯০.৯% জামিলায়ে মহিলা দাখিল মাদ্রাসার ২৩ শিক্ষার্থীর মধ্যে ১৯ জন পাস করেছে। পাসের হার ৮২.৬%। আল-আমিন আদর্শ মহিলা দাখিল মাদ্রাসা শতভাগ শিক্ষার্থী পাস করেছে। গন্ডামারা এবিএস ফাযিল মাদ্রাসার ৮০ শিক্ষার্থীর মধ্যে পাস করেছে ৬৮ জন। জিপিএ-৫ পেয়েছে ৩ জন।
আলগীবাজার আলিম মাদ্রাসায় ৪৭শিক্ষার্থী পরিক্ষায় অংশগ্রহন করে ৪৪ জন পাস করেছে। পাসের হার ৯৩.৬%। কাটাখালি হমিদিয়া মাদরাসা ২৬জন পরীক্ষার্থীর মধ্যে পাস করেছেন ২৬ জন। পাসের হার ১০০%। কমলাপুর দাখিল মাদরাসা ৩৪ জন পরীক্ষার্থীর মধ্যে পাস করেছেন ২৯জন। পাসের হার ৮৫.২%।