ঢাকা ০৭:০৬ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ০২ মার্চ ২০২৪, ১৯ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

বিতর্কিত শিক্ষা কারিকুলাম বাতিল ও পুনঃনির্বাচনের দাবিতে চাঁদপুরে ইসলামী আন্দোলনের বিক্ষোভ মিছিল

বিতর্কিত নতুন শিক্ষা কারিকুলাম বাতিল এবং ট্রানজেন্ডার ও সমকামিতাকে বৈধতা দেওয়ার পাঁয়তারার প্রতিবাদসহ ভোটারবিহীন অবৈধ নির্বাচনের মাধ্যমে গঠিত সংসদ বাতিল করে পুনঃনির্বাচনের দাবিতে চাঁদপুরে বিক্ষোভ মিছিল করেছে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ।
বুধবার বিকেলে চাঁদপুর শহরের শপথ চত্বরে এই বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশের আয়োজন করে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ চাঁদপুর জেলা শাখা।
বিক্ষোভ মিছিল পূর্ব সমাবেশে সভাপতির বক্তব্য রাখেন চাঁদপুর জেলা ইসলামী আন্দোলনের সভাপতি শেখ মোহাম্মদ জয়নাল আবেদিন।
তিনি বলেন, আমাদের বাঙালি সংস্কৃতি ও মুসলমানদের গৌরব মাখা হাজার বছরের ইতিহাস ঐতিহ্য মুছে দিতে শিক্ষাকারিকুলাম নিয়ে চক্রান্ত হচ্ছে। পাঠ্যক্রমে বাঙালি মুসলিম ইতিহাস ও সংস্কৃতি তুলে দিয়ে ভিনদেশী সংস্কৃতি ঢুকিয়ে দেওয়া হচ্ছে। যার মাধ্যমে আগামী প্রজন্মকে ইসলাম ও দেশপ্রেম থেকে দূরে সরিয়ে দিতে চায় সরকার। ভারতসহ পশ্চিমাদের মতো আমাদের দেশেও সমকামিতা নিয়ে আসার চক্রান্ত হচ্ছে। এটা এ দেশের মানুষ মেনে নেবে না। আজকে কলেজ ও ইউনিভার্সিটির সাধারণ শিক্ষক ও শিক্ষার্থীরা জেগে উঠেছে, বিতর্কিত দেশ ও ইসলাম বিদ্বেষী শিক্ষা নীতি এদেশে বাস্তবায়ন হতে দেয়া হবে না।
তিনি বলেন, ভোটার বিহীন অবৈধ এই সরকার জনগণের মতামত উপেক্ষা করে যা ইচ্ছে তাই করছে। আমরা এই অবৈধ সরকারের পদত্যাগ চাই। অনতিবিলম্বে সরকারকে পদত্যাগ করে নতুন নির্বাচন দিতে হবে।
ইসলামী আন্দোলনের জেলা সেক্রেটারি কেএম ইয়াসিন রাশেদসানীর সঞ্চালনায় বক্তব্য রাখেন জেলা ইসলামী আন্দোলনের সহ-সভাপতি গাজী মোহাম্মদ হানিফ, জেলা প্রচার ও দাওয়াহ সম্পাদক মাওলানা হেলাল আহমাদ, অর্থ ও প্রকাশনা সম্পাদক আলহাজ্ব মামুনুর রশিদ বেলাল, মুক্তিযোদ্ধা বিষয়ক সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা মীর মোশাররফ হোসেন, সংখ্যালঘু বিষয়ক সম্পাদক মাওলানা আফসার উদ্দিন, ইসলামী শ্রমিক আন্দোলনের জেলা সভাপতি মাওলানা আবুল বাশার তালুকদার, জেলা যুব আন্দোলনের সভাপতি মাওলানা ইমরান, জেলা ছাত্র আন্দোলনের সভাপতি মোহাম্মদ সেলিম হোসাইন প্রমুখ।
সমাবেশে বক্তারা ব্র্যাক ইউনিভার্সিটির শিক্ষক আসিফ মাহতাবকে পুনর্বহাল ও পুরান বাজার ডিগ্রী কলেজের অধ্যক্ষ রতন কুমার মজুমদারের অপসারণ দাবি করেন।
সমাবেশ শেষে শহরের শপথ চত্বর থেকে বিক্ষোভ মিছিল বের হয়ে মুক্তিযোদ্ধা সড়ক, হাজী মহসিন রোড ও চিত্রলেখা মোড় হয়ে বিপিনিবাগ দলীয় কার্যালয়ের সামনে গিয়ে শেষ হয়।
ট্যাগস :
জনপ্রিয় সংবাদ

রমজানের আগেই ‘দ্রব্যমূল্য নিয়ন্ত্রণ কমিশন’ দাবি নতুনধারার

বিতর্কিত শিক্ষা কারিকুলাম বাতিল ও পুনঃনির্বাচনের দাবিতে চাঁদপুরে ইসলামী আন্দোলনের বিক্ষোভ মিছিল

আপডেট সময় : ০৯:২৫:৫৩ অপরাহ্ন, বুধবার, ৩১ জানুয়ারী ২০২৪
বিতর্কিত নতুন শিক্ষা কারিকুলাম বাতিল এবং ট্রানজেন্ডার ও সমকামিতাকে বৈধতা দেওয়ার পাঁয়তারার প্রতিবাদসহ ভোটারবিহীন অবৈধ নির্বাচনের মাধ্যমে গঠিত সংসদ বাতিল করে পুনঃনির্বাচনের দাবিতে চাঁদপুরে বিক্ষোভ মিছিল করেছে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ।
বুধবার বিকেলে চাঁদপুর শহরের শপথ চত্বরে এই বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশের আয়োজন করে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ চাঁদপুর জেলা শাখা।
বিক্ষোভ মিছিল পূর্ব সমাবেশে সভাপতির বক্তব্য রাখেন চাঁদপুর জেলা ইসলামী আন্দোলনের সভাপতি শেখ মোহাম্মদ জয়নাল আবেদিন।
তিনি বলেন, আমাদের বাঙালি সংস্কৃতি ও মুসলমানদের গৌরব মাখা হাজার বছরের ইতিহাস ঐতিহ্য মুছে দিতে শিক্ষাকারিকুলাম নিয়ে চক্রান্ত হচ্ছে। পাঠ্যক্রমে বাঙালি মুসলিম ইতিহাস ও সংস্কৃতি তুলে দিয়ে ভিনদেশী সংস্কৃতি ঢুকিয়ে দেওয়া হচ্ছে। যার মাধ্যমে আগামী প্রজন্মকে ইসলাম ও দেশপ্রেম থেকে দূরে সরিয়ে দিতে চায় সরকার। ভারতসহ পশ্চিমাদের মতো আমাদের দেশেও সমকামিতা নিয়ে আসার চক্রান্ত হচ্ছে। এটা এ দেশের মানুষ মেনে নেবে না। আজকে কলেজ ও ইউনিভার্সিটির সাধারণ শিক্ষক ও শিক্ষার্থীরা জেগে উঠেছে, বিতর্কিত দেশ ও ইসলাম বিদ্বেষী শিক্ষা নীতি এদেশে বাস্তবায়ন হতে দেয়া হবে না।
তিনি বলেন, ভোটার বিহীন অবৈধ এই সরকার জনগণের মতামত উপেক্ষা করে যা ইচ্ছে তাই করছে। আমরা এই অবৈধ সরকারের পদত্যাগ চাই। অনতিবিলম্বে সরকারকে পদত্যাগ করে নতুন নির্বাচন দিতে হবে।
ইসলামী আন্দোলনের জেলা সেক্রেটারি কেএম ইয়াসিন রাশেদসানীর সঞ্চালনায় বক্তব্য রাখেন জেলা ইসলামী আন্দোলনের সহ-সভাপতি গাজী মোহাম্মদ হানিফ, জেলা প্রচার ও দাওয়াহ সম্পাদক মাওলানা হেলাল আহমাদ, অর্থ ও প্রকাশনা সম্পাদক আলহাজ্ব মামুনুর রশিদ বেলাল, মুক্তিযোদ্ধা বিষয়ক সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা মীর মোশাররফ হোসেন, সংখ্যালঘু বিষয়ক সম্পাদক মাওলানা আফসার উদ্দিন, ইসলামী শ্রমিক আন্দোলনের জেলা সভাপতি মাওলানা আবুল বাশার তালুকদার, জেলা যুব আন্দোলনের সভাপতি মাওলানা ইমরান, জেলা ছাত্র আন্দোলনের সভাপতি মোহাম্মদ সেলিম হোসাইন প্রমুখ।
সমাবেশে বক্তারা ব্র্যাক ইউনিভার্সিটির শিক্ষক আসিফ মাহতাবকে পুনর্বহাল ও পুরান বাজার ডিগ্রী কলেজের অধ্যক্ষ রতন কুমার মজুমদারের অপসারণ দাবি করেন।
সমাবেশ শেষে শহরের শপথ চত্বর থেকে বিক্ষোভ মিছিল বের হয়ে মুক্তিযোদ্ধা সড়ক, হাজী মহসিন রোড ও চিত্রলেখা মোড় হয়ে বিপিনিবাগ দলীয় কার্যালয়ের সামনে গিয়ে শেষ হয়।