ঢাকা ০২:১৪ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২৫ এপ্রিল ২০২৪, ১১ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

মতলব উত্তরে জাটকা রক্ষা সংক্রান্ত টাস্কফোর্স কমিটির সভা

চাঁদপুরের মতলব উত্তরে জাটকা রক্ষা সংক্রান্ত উপজেলা টাস্কফোর্স কমিটির আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।
বৃহস্পতিবার (২৯ ফেব্রুয়ারি) সকালে উপজেলা পরিষদের সম্মেলন কক্ষে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়। সিনিয়র উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তার কার্যালয়ের আয়োজিত সভার সভাপতিত্ব করেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার একি মিত্র চাকমা।
সভাপতির বক্তব্যে ইউএনও একি মিত্র চাকমা বলেন, ইলিশের উৎপাদন বৃদ্ধিতে আমাদের জাটকা মাছ ধরা থেকে বিরত থাকতে হবে। জাটকা মাছ নিধনরোধ করতে পারলে বাংলাদেশ ইলিশের প্রাচুর্যে ভরে যাবে। নিষেধাজ্ঞার এই সময়টাতে কোন অবস্থাতেই জাটকা ইলিশ ধরা যাবে না। নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে কেউ জাটকা মাছ ধরতে নদীতে নামলে তাদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া হবে। ইলিশের উৎপাদন বৃদ্ধিতে সকলকে ঐক্যবদ্ধভাবে জাটকা নিধনরোধে কাজ করার আহবান জানান।
আরো বক্তব্য রাখেন, উপজেলা কৃষি অফিসার ফয়সাল মোহাম্মদ আলী, সিনিয়র মৎস্য কর্মকর্তা মনোয়ারা বেগম, জহিরাবাদ ইউপি চেয়ারম্যান গাজী সেলিম মিয়া, গজরা ইউপি চেয়ারম্যান শহিদ উল্ল্যাহ প্রধান, উপজেলা মৎস্যজীবি লীগের সভাপতি নইমুল হাসান লাভলু, উপজেলা সহকারী মৎস্য কর্মকর্তা মো. রাশেদুজ্জামান, মতলব উত্তর উপজেলা প্রেসক্লাবের সভাপতি গোলাম নবী খোকন, মতলব উত্তর প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক মো. দ্বীন ইসলাম, মোহনপুর নৌপুলিশ ফাঁড়ি প্রতিনিধি এসআই ফেরদৌস, বেলতলী ফাঁড়ি প্রতিনিধি এএসআই কংজরী, আড়ৎদার নজরুল ইসলাম, মৎস্যজীবি প্রতিনিধি উমর আলী প্রমুখ।
প্রসঙ্গত, ১ মার্চ থেকে ৩০ এপ্রিল পর্যন্ত দুই মাস অভয়াশ্রম এলাকায় জাটকাসহ সব ধরনের মাছ আহরণ নিষিদ্ধ থাকবে।
ট্যাগস :
জনপ্রিয় সংবাদ

মতলব উত্তরে কাপ-পিরিচ প্রতীকে উঠান বৈঠক ও ব্যাপক গণসংযোগ

মতলব উত্তরে জাটকা রক্ষা সংক্রান্ত টাস্কফোর্স কমিটির সভা

আপডেট সময় : ১১:৪১:৫৬ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২৯ ফেব্রুয়ারী ২০২৪
চাঁদপুরের মতলব উত্তরে জাটকা রক্ষা সংক্রান্ত উপজেলা টাস্কফোর্স কমিটির আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।
বৃহস্পতিবার (২৯ ফেব্রুয়ারি) সকালে উপজেলা পরিষদের সম্মেলন কক্ষে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়। সিনিয়র উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তার কার্যালয়ের আয়োজিত সভার সভাপতিত্ব করেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার একি মিত্র চাকমা।
সভাপতির বক্তব্যে ইউএনও একি মিত্র চাকমা বলেন, ইলিশের উৎপাদন বৃদ্ধিতে আমাদের জাটকা মাছ ধরা থেকে বিরত থাকতে হবে। জাটকা মাছ নিধনরোধ করতে পারলে বাংলাদেশ ইলিশের প্রাচুর্যে ভরে যাবে। নিষেধাজ্ঞার এই সময়টাতে কোন অবস্থাতেই জাটকা ইলিশ ধরা যাবে না। নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে কেউ জাটকা মাছ ধরতে নদীতে নামলে তাদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া হবে। ইলিশের উৎপাদন বৃদ্ধিতে সকলকে ঐক্যবদ্ধভাবে জাটকা নিধনরোধে কাজ করার আহবান জানান।
আরো বক্তব্য রাখেন, উপজেলা কৃষি অফিসার ফয়সাল মোহাম্মদ আলী, সিনিয়র মৎস্য কর্মকর্তা মনোয়ারা বেগম, জহিরাবাদ ইউপি চেয়ারম্যান গাজী সেলিম মিয়া, গজরা ইউপি চেয়ারম্যান শহিদ উল্ল্যাহ প্রধান, উপজেলা মৎস্যজীবি লীগের সভাপতি নইমুল হাসান লাভলু, উপজেলা সহকারী মৎস্য কর্মকর্তা মো. রাশেদুজ্জামান, মতলব উত্তর উপজেলা প্রেসক্লাবের সভাপতি গোলাম নবী খোকন, মতলব উত্তর প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক মো. দ্বীন ইসলাম, মোহনপুর নৌপুলিশ ফাঁড়ি প্রতিনিধি এসআই ফেরদৌস, বেলতলী ফাঁড়ি প্রতিনিধি এএসআই কংজরী, আড়ৎদার নজরুল ইসলাম, মৎস্যজীবি প্রতিনিধি উমর আলী প্রমুখ।
প্রসঙ্গত, ১ মার্চ থেকে ৩০ এপ্রিল পর্যন্ত দুই মাস অভয়াশ্রম এলাকায় জাটকাসহ সব ধরনের মাছ আহরণ নিষিদ্ধ থাকবে।