ঢাকা ০৫:৫৩ অপরাহ্ন, বুধবার, ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১৬ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

ফরিদগঞ্জে পানিতে পড়ে শিশুর মৃত্যু

এস এম ইকবাল : ফরিদগঞ্জে খেলার চলে পানিতে পড়ে ৬ বছরের শিশুর মৃত্যু হয়েছে।
২৫ সেপ্টেম্বর রোববার দুপুরে উপজেলার ৬নং গুপ্টি পশ্চিম ইউনিয়নের খাজুরিয়া দীঘির পূর্ব পাডের আরিফ পাটওয়ারী বাড়ির ভাড়াটিয়া ফাতেমা বেগমের মেয়ে হাফিজা (৬) পানিতে পড়ে মারা যায়।
পানিতে পড়ে শিশুর মৃত্যু সংবাদ পেয়ে ফরিদগঞ্জ থানার এসআই আব্দুল মান্নান ঘটনাস্থলে গিয়ে খোঁজ খবর নিয়ে আসেন।
স্থানীয়রা ও পুলিশ সূত্রে জানাযায়, শিশু হাফিজা খেলার চলে বাড়ির সকলের অগোচরে পানিতে পড়ে যায়। হাফিজার মা ফাতেমা বেগম হাফিজা কে না পেয়ে চারদিকে খোঁজ করে এবং বাড়ির লোকজন দীঘিতে নেমে ডুবন্ত অবস্থায় শিশু হাফিজাকে খুঁজে পায়। এরপর বাড়ির লোকজন শিশু হাফিজাকে ফরিদগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসলে কর্তব্যরত চিকিৎসক শিশুটিকে মৃত ঘোষণা করেন।
শিশু হাফিজা পাশ্ববর্তী লক্ষীপুর জেলার রামগঞ্জ উপজেলার ২নং নোয়াগাঁও ইউনিয়নের উদীয়পুর গ্রামের সৌদি প্রবাসী হোসাইন ও ফাতেমা বেগমের একমাত্র সন্তান।
নিহত হাফিজ আক্তারের মা ফাতেমা বেগম জানান, পারিবারিক কলোহে আমি মেয়েসহ ফরিদগঞ্জে ভাড়া থাকি। দুপুরে খেলতে গিয়ে বাড়ির পাশের দীঘিতে পড়ে  আমার একমাত্র মেয়ে যার।
এ বিষয়ে ফরিদগঞ্জ থানার ওসি মোহাম্মদ শহীদ হোসেন বলেন, পরিবারের আবেদনের প্রেক্ষিতে ওই কন্যা শিশুটির মরদেহ তার মায়ের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।
ট্যাগস :
জনপ্রিয় সংবাদ

ক্যাব চাঁদপুরের আয়োজনে বাজার পরিস্থিতি ও নিরাপদ খাদ্য বিষয়ক মত বিনিময় সভা

ফরিদগঞ্জে পানিতে পড়ে শিশুর মৃত্যু

আপডেট সময় : ০৩:২৩:৫৬ অপরাহ্ন, রবিবার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২২
এস এম ইকবাল : ফরিদগঞ্জে খেলার চলে পানিতে পড়ে ৬ বছরের শিশুর মৃত্যু হয়েছে।
২৫ সেপ্টেম্বর রোববার দুপুরে উপজেলার ৬নং গুপ্টি পশ্চিম ইউনিয়নের খাজুরিয়া দীঘির পূর্ব পাডের আরিফ পাটওয়ারী বাড়ির ভাড়াটিয়া ফাতেমা বেগমের মেয়ে হাফিজা (৬) পানিতে পড়ে মারা যায়।
পানিতে পড়ে শিশুর মৃত্যু সংবাদ পেয়ে ফরিদগঞ্জ থানার এসআই আব্দুল মান্নান ঘটনাস্থলে গিয়ে খোঁজ খবর নিয়ে আসেন।
স্থানীয়রা ও পুলিশ সূত্রে জানাযায়, শিশু হাফিজা খেলার চলে বাড়ির সকলের অগোচরে পানিতে পড়ে যায়। হাফিজার মা ফাতেমা বেগম হাফিজা কে না পেয়ে চারদিকে খোঁজ করে এবং বাড়ির লোকজন দীঘিতে নেমে ডুবন্ত অবস্থায় শিশু হাফিজাকে খুঁজে পায়। এরপর বাড়ির লোকজন শিশু হাফিজাকে ফরিদগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসলে কর্তব্যরত চিকিৎসক শিশুটিকে মৃত ঘোষণা করেন।
শিশু হাফিজা পাশ্ববর্তী লক্ষীপুর জেলার রামগঞ্জ উপজেলার ২নং নোয়াগাঁও ইউনিয়নের উদীয়পুর গ্রামের সৌদি প্রবাসী হোসাইন ও ফাতেমা বেগমের একমাত্র সন্তান।
নিহত হাফিজ আক্তারের মা ফাতেমা বেগম জানান, পারিবারিক কলোহে আমি মেয়েসহ ফরিদগঞ্জে ভাড়া থাকি। দুপুরে খেলতে গিয়ে বাড়ির পাশের দীঘিতে পড়ে  আমার একমাত্র মেয়ে যার।
এ বিষয়ে ফরিদগঞ্জ থানার ওসি মোহাম্মদ শহীদ হোসেন বলেন, পরিবারের আবেদনের প্রেক্ষিতে ওই কন্যা শিশুটির মরদেহ তার মায়ের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।