ঢাকা ১২:০০ অপরাহ্ন, বুধবার, ২২ মে ২০২৪, ৮ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

মাত্র ৩১১ জন ভোটের জন্য ১২ প্রার্থী!

মোজাম্মেল প্রধান হাসিব : চাঁদপুরের হাজীগঞ্জ উপজেলার ১১নং দ্বাদশগ্রাম ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে একটি গ্রাম এবং মাত্র ৩১১ জন ভোটার নিয়ে গঠিত ৮নং ওয়ার্ড। ১৬ মার্চ সকাল সাড়ে ১১টা।

Model Hospital

নির্বাচন পর্যবেক্ষণে গেলে চোখে পড়ে এই ভোট কেন্দ্রটি। সড়কের পাশ ঘেঁষেই এই কেন্দ্রটির অবস্থান। চরপাড়া মসজিদের সামনেই একটি টিনের দোচালা মুক্তব ঘর। আর এই ঘরে চলে ৮নং ওয়ার্ডের ভোট গ্রহণ। ছোট এই ঘরেই প্রিজাইডিং অফিসার, নির্বাচনে অংশগ্রহণকারি ১২ জন প্রার্থীর এজেন্ট এবং ভোট গ্রহণের বুথ। এ যেন এক হযবরল অবস্থা। তবে অন্যান্য ওয়ার্ডের মতই ছিল প্রিজাইডিং অফিসার, পুলিশ প্রশাসনসহ সকল প্রকার নির্বাচনী ব্যবস্থা।

হাজীগঞ্জ উপজেলা সমবায় অফিসার ও দায়িত্ব প্রাপ্ত প্রিজাইডিং কর্মকর্তা গোলামুর রহমান শামীম বলেন, শান্তিপূর্ণ এবং সুশৃঙ্খলভাবে ভোট গ্রহণ চলছে। তবে ছোট টিনসেট ঘরে ১২ জন প্রার্থীর এজেন্টসহ ভোটারদের বুথ। তাই একটু কষ্ট হচ্ছে। তবে বসার জায়গা সংকট ছাড়া কোন রকম সমস্যা নেই এই কেন্দ্রে।

স্থানীয়রা জানান, যেখানে অন্যান্য কেন্দ্রগুলো সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় বা উচ্চ বিদ্যালয়ে সেখানে এমন একটি ছোট টিনসেট ঘরে ভোট কেন্দ্র হওয়ায় গাদাগাদি করে ভোট গ্রহণ ও ভোটের কার্যক্রম পরিচালনা করা একটি অস্বাভাবিক ব্যাপার। আমরা চাই আগামী নির্বাচনে একটি বড় পরিসরে কেন্দ্রটি হবে।

ট্যাগস :
জনপ্রিয় সংবাদ

চাঁদপুরের তিন উপজেলার ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থীরা কে কত ভোট পেলেন

মাত্র ৩১১ জন ভোটের জন্য ১২ প্রার্থী!

আপডেট সময় : ০২:৪০:২৬ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৬ মার্চ ২০২৩

মোজাম্মেল প্রধান হাসিব : চাঁদপুরের হাজীগঞ্জ উপজেলার ১১নং দ্বাদশগ্রাম ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে একটি গ্রাম এবং মাত্র ৩১১ জন ভোটার নিয়ে গঠিত ৮নং ওয়ার্ড। ১৬ মার্চ সকাল সাড়ে ১১টা।

Model Hospital

নির্বাচন পর্যবেক্ষণে গেলে চোখে পড়ে এই ভোট কেন্দ্রটি। সড়কের পাশ ঘেঁষেই এই কেন্দ্রটির অবস্থান। চরপাড়া মসজিদের সামনেই একটি টিনের দোচালা মুক্তব ঘর। আর এই ঘরে চলে ৮নং ওয়ার্ডের ভোট গ্রহণ। ছোট এই ঘরেই প্রিজাইডিং অফিসার, নির্বাচনে অংশগ্রহণকারি ১২ জন প্রার্থীর এজেন্ট এবং ভোট গ্রহণের বুথ। এ যেন এক হযবরল অবস্থা। তবে অন্যান্য ওয়ার্ডের মতই ছিল প্রিজাইডিং অফিসার, পুলিশ প্রশাসনসহ সকল প্রকার নির্বাচনী ব্যবস্থা।

হাজীগঞ্জ উপজেলা সমবায় অফিসার ও দায়িত্ব প্রাপ্ত প্রিজাইডিং কর্মকর্তা গোলামুর রহমান শামীম বলেন, শান্তিপূর্ণ এবং সুশৃঙ্খলভাবে ভোট গ্রহণ চলছে। তবে ছোট টিনসেট ঘরে ১২ জন প্রার্থীর এজেন্টসহ ভোটারদের বুথ। তাই একটু কষ্ট হচ্ছে। তবে বসার জায়গা সংকট ছাড়া কোন রকম সমস্যা নেই এই কেন্দ্রে।

স্থানীয়রা জানান, যেখানে অন্যান্য কেন্দ্রগুলো সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় বা উচ্চ বিদ্যালয়ে সেখানে এমন একটি ছোট টিনসেট ঘরে ভোট কেন্দ্র হওয়ায় গাদাগাদি করে ভোট গ্রহণ ও ভোটের কার্যক্রম পরিচালনা করা একটি অস্বাভাবিক ব্যাপার। আমরা চাই আগামী নির্বাচনে একটি বড় পরিসরে কেন্দ্রটি হবে।