ঢাকা ০৭:১১ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ১৩ এপ্রিল ২০২৪, ৩০ চৈত্র ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

শাহরাস্তিতে পল্লী চিকিৎসক ও ঔষধ দোকানিকে ২৫ হাজার টাকা দন্ড

শাহরাস্তিতে ভ্রাম্যমান আদালতে এক পল্লী চিকিৎসক ও ঔষধ দোকানিকে ২৫ হাজার টাকা অর্থ দন্ড প্রদান করা হয়েছে।

Model Hospital

উপজেলা প্রশাসনের অভিযানে চাঁদপুর কুমিল্লা আঞ্চলিক মহাসড়কের বানিয়াচোঁ বাস স্ট্যান্ড সংলগ্ন এলাকায় ১টি ওষুধ দোকানী এবং এক পল্লী চিকিৎসকে এ দন্ড প্রদান করা হয়।

সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, বৃহস্পতিবার শাহরাস্তি উপজেলা নির্বাহী অফিসার, বিজ্ঞ নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মোঃ ইয়াসির আরাফাত উপজেলার বানিয়াচৌঁ এলাকায় বিছমিল্লাহ ফার্মেসিতে ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনা করেন।

এতে বিসমিল্লাহ ফার্মেসিতে ড্রাগ লাইসেন্স ও ঔষধ মেয়াদউত্তীর্ণ পাওয়া যায়। ওই সময় পার্শ্ববর্তী কক্ষে ওই এলাকার পল্লী চিকিৎসক শফিউল ইসলাম দুলালের চিকিৎসা প্রদানের একটি চেম্বারের সন্ধান পাওয়া যায়।

সংশ্লিষ্ট সূত্র আরো জানায়, ওই চেম্বারে দীর্ঘদিন ধরে ওই পল্লী চিকিৎসক দুলাল ডাক্তার নেমপ্লেট ব্যবহার করতেন।একই সঙ্গে তিনি রোগীদের প্রেসক্রিপশন, অপারেশনসহ সকল ধরনের চিকিৎসা প্রদান করতেন। যা তার যোগ্যতা এবং চিকিৎসা বিজ্ঞানের আইনি কাঠামোর উর্ধ্বে।

ওইদিন বিষয়টি আদালত অভিযানে আমলে নিয়ে বিজ্ঞ নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো: ইয়াসির আরাফাত তাকে চিকিৎসক দুলালকে ২০ হাজার টাকা পার্শ্ববর্তী বিসমিল্লাহ ফার্মেসিকে ৫ হাজার টাকাসহ সর্বমোট ২৫ হাজার টাকা অর্থদণ্ড প্রধান করেন।

ওই সময় প্রসিকিউটর হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন, উপজেলা স্বাস্থ্য পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা: নাসির উদ্দিন পুলিশ প্রশাসনের সংশ্লিষ্ট অফিসার সঙ্গীও ফোর্স উপজেলা প্রশাসনের সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তা ।

এ বিষয়ে ডা: নাসির উদ্দিন জানার, তিনি একজন পল্লী চিকিৎসক ডাক্তার শব্দ লিখে রোগীদের প্রেসক্রিপশন করতে পারেন না।

একই সঙ্গে অভিযোগ রয়েছে তিনি ওই চেম্বারে একই সার্জিক্যাল ইকুয়ারমেন্ট দিয়ে বারবার রোগীদের সার্জারি করতেন।

যা তিনি পারেন না। আদালত সকল বিষয় আমলে নিয়ে তাকে অর্থদণ্ড প্রদান ও সতর্ক করে দেয়।

ট্যাগস :
জনপ্রিয় সংবাদ

ঈদে স্ত্রীকে মাংস কিনে খাওয়াতে না পেরে চিরকুট লিখে আত্মহত্যা

শাহরাস্তিতে পল্লী চিকিৎসক ও ঔষধ দোকানিকে ২৫ হাজার টাকা দন্ড

আপডেট সময় : ০৮:০৭:৪৫ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৪ ফেব্রুয়ারী ২০২৪

শাহরাস্তিতে ভ্রাম্যমান আদালতে এক পল্লী চিকিৎসক ও ঔষধ দোকানিকে ২৫ হাজার টাকা অর্থ দন্ড প্রদান করা হয়েছে।

Model Hospital

উপজেলা প্রশাসনের অভিযানে চাঁদপুর কুমিল্লা আঞ্চলিক মহাসড়কের বানিয়াচোঁ বাস স্ট্যান্ড সংলগ্ন এলাকায় ১টি ওষুধ দোকানী এবং এক পল্লী চিকিৎসকে এ দন্ড প্রদান করা হয়।

সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, বৃহস্পতিবার শাহরাস্তি উপজেলা নির্বাহী অফিসার, বিজ্ঞ নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মোঃ ইয়াসির আরাফাত উপজেলার বানিয়াচৌঁ এলাকায় বিছমিল্লাহ ফার্মেসিতে ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনা করেন।

এতে বিসমিল্লাহ ফার্মেসিতে ড্রাগ লাইসেন্স ও ঔষধ মেয়াদউত্তীর্ণ পাওয়া যায়। ওই সময় পার্শ্ববর্তী কক্ষে ওই এলাকার পল্লী চিকিৎসক শফিউল ইসলাম দুলালের চিকিৎসা প্রদানের একটি চেম্বারের সন্ধান পাওয়া যায়।

সংশ্লিষ্ট সূত্র আরো জানায়, ওই চেম্বারে দীর্ঘদিন ধরে ওই পল্লী চিকিৎসক দুলাল ডাক্তার নেমপ্লেট ব্যবহার করতেন।একই সঙ্গে তিনি রোগীদের প্রেসক্রিপশন, অপারেশনসহ সকল ধরনের চিকিৎসা প্রদান করতেন। যা তার যোগ্যতা এবং চিকিৎসা বিজ্ঞানের আইনি কাঠামোর উর্ধ্বে।

ওইদিন বিষয়টি আদালত অভিযানে আমলে নিয়ে বিজ্ঞ নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো: ইয়াসির আরাফাত তাকে চিকিৎসক দুলালকে ২০ হাজার টাকা পার্শ্ববর্তী বিসমিল্লাহ ফার্মেসিকে ৫ হাজার টাকাসহ সর্বমোট ২৫ হাজার টাকা অর্থদণ্ড প্রধান করেন।

ওই সময় প্রসিকিউটর হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন, উপজেলা স্বাস্থ্য পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা: নাসির উদ্দিন পুলিশ প্রশাসনের সংশ্লিষ্ট অফিসার সঙ্গীও ফোর্স উপজেলা প্রশাসনের সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তা ।

এ বিষয়ে ডা: নাসির উদ্দিন জানার, তিনি একজন পল্লী চিকিৎসক ডাক্তার শব্দ লিখে রোগীদের প্রেসক্রিপশন করতে পারেন না।

একই সঙ্গে অভিযোগ রয়েছে তিনি ওই চেম্বারে একই সার্জিক্যাল ইকুয়ারমেন্ট দিয়ে বারবার রোগীদের সার্জারি করতেন।

যা তিনি পারেন না। আদালত সকল বিষয় আমলে নিয়ে তাকে অর্থদণ্ড প্রদান ও সতর্ক করে দেয়।