ঢাকা ০২:৫৮ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ০২ মার্চ ২০২৪, ১৮ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

চাঁসকে শেখ মুজিবুর রহমানের ৪৭তম শাহাদত বার্ষিকী উপলক্ষে ওয়েবিনার

ক্যাম্পাস রিপোর্ট : মেঘনা পাড়ের বাতিঘর বলে খ্যাত চাঁদপুর সরকারি কলেজে হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙালি, স্বাধীনতার মহান স্থপতি জাতির পিতা শেখ মুজিবুর রহমানের ৪৭তম শাহাদত বার্ষিকী ও জাতীয় শোক দিবস-২০২২ এর অংশ হিসেবে ৩০ আগস্ট বিকাল তিনটায় ভার্চুয়াল প্লাটফর্ম ব্যবহার করে ইতিহাস বিভাগের বিভাগীয় প্রধান ও সহযোগী অধ্যাপক শেখ মোঃ খলিলুর রহমানের সভাপতিত্বে ‘‘১৫ আগস্ট পরবর্তী বাঙালির চেতনায় বঙ্গবন্ধু: একটি পর্যালোচনা’’ শীর্ষক ওয়েবিনার অনুষ্ঠিত হয়।

Model Hospital

ওয়েবিনারে প্রধান অতিথি ছিলেন কলেজ অধ্যক্ষ প্রফেসর অসিত বরণ দাশ। বিশেষ অতিথি ছিলেন উপাধ্যক্ষ প্রফেসর মোঃ আবুল খায়ের সরকার এবং শিক্ষক পরিষদ সম্পাদক ও উদ্ভিদবিদ্যা বিভাগের সহকারী অধ্যাপক মোহাম্মদ কামরুল হাছান। বাংলা বিভাগের প্রভাষক ফাতেমা আক্তারের সঞ্চালনায় ওয়েবিনারে প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন বাংলা বিভাগের সহকারী অধ্যাপক মোঃ সাইদুজ্জামান। রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের সহকারী অধ্যাপক মেহেদী হাসান উপস্থাপিত প্রবন্ধের উপর আলোচনা করেন।

ওয়েবিনারে বঙ্গবন্ধুর রাজনৈতিক জীবনের গুরুত্বপূর্ণ দিক তুলে ধরা হয়। উপাধ্যক্ষ প্রফেসর মোঃ আবুল খায়ের সরকার বলেন, ‘‘বঙ্গবন্ধুর আদর্শকে হৃদয়ে ধারণ করে তাঁর দেখানো পথেই আমাদেরকে এগিয়ে যেতে হবে। আমরা যদি আমাদের দায়িত্ব ও কর্তব্য যথাযথভাবে পালন করি, তাহলে বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলা বাস্তবে রূপ নিবে।’’ জননেত্রী শেখ হাসিনার হাত ধরে বঙ্গবন্ধুর অসমাপ্ত কাজগুলো সমাপ্ত হবে বলে তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে প্রফেসর অসিত বরণ দাশ বলেন, ‘‘বঙ্গবন্ধুর দৈহিক মৃত্যু হয়েছে ঠিকই, কিন্তু তাঁর আদর্শের মৃত্যু হয়নি। মৃত্যুই তাঁকে অবিনশ্বরই বানিয়েছে, পরিণত করেছে মহানায়কে। তিনি বেঁেচ থাকবেন আমাদের হৃদয়ে, সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ বাঙালি হয়েই। যতদিন বাংলাদেশ থাকবে, ততদিন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এদেশের মানুষের হৃদয়ের থাকবেন। তিনি জীবনের ৪৬৮২টি দিন কারাগারে ছিলেন। এদেশের মানুষের মুক্তিই ছিলো তাঁর জীবনের লক্ষ্য ও উদ্দেশ্য।’’ ওয়েবিনার আয়োজনের সাথে সংশ্লিষ্ট সকলকে তিনি ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জানান।

বিভিন্ন বিভাগের বিভাগীয় প্রধান, শিক্ষকবৃন্দ ওয়েবিনারে সংযুক্ত ছিলেন।

ট্যাগস :
জনপ্রিয় সংবাদ

রমজানের আগেই ‘দ্রব্যমূল্য নিয়ন্ত্রণ কমিশন’ দাবি নতুনধারার

চাঁসকে শেখ মুজিবুর রহমানের ৪৭তম শাহাদত বার্ষিকী উপলক্ষে ওয়েবিনার

আপডেট সময় : ০৫:৩০:৫৩ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ৩১ অগাস্ট ২০২২

ক্যাম্পাস রিপোর্ট : মেঘনা পাড়ের বাতিঘর বলে খ্যাত চাঁদপুর সরকারি কলেজে হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙালি, স্বাধীনতার মহান স্থপতি জাতির পিতা শেখ মুজিবুর রহমানের ৪৭তম শাহাদত বার্ষিকী ও জাতীয় শোক দিবস-২০২২ এর অংশ হিসেবে ৩০ আগস্ট বিকাল তিনটায় ভার্চুয়াল প্লাটফর্ম ব্যবহার করে ইতিহাস বিভাগের বিভাগীয় প্রধান ও সহযোগী অধ্যাপক শেখ মোঃ খলিলুর রহমানের সভাপতিত্বে ‘‘১৫ আগস্ট পরবর্তী বাঙালির চেতনায় বঙ্গবন্ধু: একটি পর্যালোচনা’’ শীর্ষক ওয়েবিনার অনুষ্ঠিত হয়।

Model Hospital

ওয়েবিনারে প্রধান অতিথি ছিলেন কলেজ অধ্যক্ষ প্রফেসর অসিত বরণ দাশ। বিশেষ অতিথি ছিলেন উপাধ্যক্ষ প্রফেসর মোঃ আবুল খায়ের সরকার এবং শিক্ষক পরিষদ সম্পাদক ও উদ্ভিদবিদ্যা বিভাগের সহকারী অধ্যাপক মোহাম্মদ কামরুল হাছান। বাংলা বিভাগের প্রভাষক ফাতেমা আক্তারের সঞ্চালনায় ওয়েবিনারে প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন বাংলা বিভাগের সহকারী অধ্যাপক মোঃ সাইদুজ্জামান। রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের সহকারী অধ্যাপক মেহেদী হাসান উপস্থাপিত প্রবন্ধের উপর আলোচনা করেন।

ওয়েবিনারে বঙ্গবন্ধুর রাজনৈতিক জীবনের গুরুত্বপূর্ণ দিক তুলে ধরা হয়। উপাধ্যক্ষ প্রফেসর মোঃ আবুল খায়ের সরকার বলেন, ‘‘বঙ্গবন্ধুর আদর্শকে হৃদয়ে ধারণ করে তাঁর দেখানো পথেই আমাদেরকে এগিয়ে যেতে হবে। আমরা যদি আমাদের দায়িত্ব ও কর্তব্য যথাযথভাবে পালন করি, তাহলে বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলা বাস্তবে রূপ নিবে।’’ জননেত্রী শেখ হাসিনার হাত ধরে বঙ্গবন্ধুর অসমাপ্ত কাজগুলো সমাপ্ত হবে বলে তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে প্রফেসর অসিত বরণ দাশ বলেন, ‘‘বঙ্গবন্ধুর দৈহিক মৃত্যু হয়েছে ঠিকই, কিন্তু তাঁর আদর্শের মৃত্যু হয়নি। মৃত্যুই তাঁকে অবিনশ্বরই বানিয়েছে, পরিণত করেছে মহানায়কে। তিনি বেঁেচ থাকবেন আমাদের হৃদয়ে, সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ বাঙালি হয়েই। যতদিন বাংলাদেশ থাকবে, ততদিন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এদেশের মানুষের হৃদয়ের থাকবেন। তিনি জীবনের ৪৬৮২টি দিন কারাগারে ছিলেন। এদেশের মানুষের মুক্তিই ছিলো তাঁর জীবনের লক্ষ্য ও উদ্দেশ্য।’’ ওয়েবিনার আয়োজনের সাথে সংশ্লিষ্ট সকলকে তিনি ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জানান।

বিভিন্ন বিভাগের বিভাগীয় প্রধান, শিক্ষকবৃন্দ ওয়েবিনারে সংযুক্ত ছিলেন।