ঢাকা ০২:৩৮ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৩ জুলাই ২০২৪, ৮ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

মতলব দক্ষিণে দুর্ধর্ষ ডাকাতি, স্বর্ণালঙ্কার ও মোবাইল সেটসহ নগদ টাকা লুট

মোজাম্মেল প্রধান হাসিব : চাঁদপুরের মতলব দক্ষিণে নৈশপ্রহরীর হাত-পা বেঁধে ও মুখে স্কচটেপ লাগিয়ে পাঁচ ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে এক দুর্ধর্ষ ডাকাতি সংঘটিত হয়েছে।
গতকাল সোমবার গভীর রাতে উপজেলার নায়েরগাঁও বাজারে স্বর্ণালঙ্কার ও মোবাইল সেটসহ পাঁচটি ব্যবসা-প্রতিষ্ঠানে এ ডাকাতির ঘটনা ঘটে।
এতে নগদ টাকা, স্বর্ণালঙ্কার ও দামি মোবাইল সেটসহ প্রায় ২৬ লাখ টাকার মালামাল লুট করে নিয়ে যায় সংঘবদ্ধ ডাকাত দল।
খবর পেয়ে আজ মঙ্গলবার সকালে একাধিক পুলিশ কর্মকর্তা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। এ ঘটনায় মতলব দক্ষিণ থানায় একটি ডাকাতির মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।
থানা ও স্থানীয় সূত্র জানা যায়, গতকাল সোমবার দিবাগত রাত দুইটার দিকে ২০-২৫ জনের একটি সশস্ত্র ডাকাতদল নদীপথে স্পিডবোটযোগে নায়েরগাঁও বাজারে প্রবেশ করেন। ডাকাতেরা বাজারটির চার নৈশপ্রহরীকে একত্রিত করে বাজারের একটি দোকানের সামনে রশি দিয়ে হাত-পা বেঁধে মুখে স্কচটেপ লাগিয়ে দেন। এরপর তারা বাজারের রিংকু দাস, নিত্য গোপাল দাস, প্রদীপ চন্দ্র দাস ও কেশব চন্দ্র দাসের স্বর্ণের দোকান এবং মোঃ নুর উদ্দিনের মোবাইল সেটের দোকানের শাটারের তালা ভেঙে ভেতরে প্রবেশ করেন। এসময় ডাকাতদল রিংকু দাসের দোকান থেকে ১৫ ভরি স্বর্ণালঙ্কার ও নগদ ৪ লাখ টাকা, নিত্য গোপাল দাসের দোকান থেকে আড়াই ভরি স্বর্ণালঙ্কার ও নগদ ৮০ হাজার টাকা, প্রদীপ চন্দ্র দাসের দোকান থেকে ৪ ভরি রূপা ও কিছু স্বর্ণালঙ্কার, কেশব চন্দ্র দাসের দোকান থেকে নগদ ১৫ হাজার টাকা ও স্বর্ণালঙ্কার এবং নুর উদ্দিনের দোকান থেকে ২০টি দামি স্মাটফোন সেট লুট করে নিয়ে যায়।
থানা সূত্রে জানা গেছে, সোমবার ভোর রাতে খবর পেয়ে ওই দোকানিরা ঘটনাস্থলে এসে বিষয়টি পুলিশকে জানালে আজ মঙ্গলবার সকালে চাঁদপুরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মাইনুল ইসলাম, সহকারী পুলিশ সুপার মো. ইয়াছির আরাফাত ও মতলব দক্ষিণ থানার ওসি মোহাম্মদ মহিউদ্দিন মিয়া ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে ক্ষতিগ্রস্ত দোকানিদের খোঁজখবর নেন।
এবিষয়ে মতলব দক্ষিণ থানার ওসি মোহাম্মদ মহিউদ্দিন মিয়া জানান, এটি একটি রহস্যজনক ডাকাতি। পুরো ঘটনার তদন্ত চলছে। এ ব্যাপারে থানায় একটি ডাকাতির মামলা প্রক্রিয়াধীন।
ট্যাগস :
জনপ্রিয় সংবাদ

স্কুলের শ্রেণিকক্ষে ‘আপত্তিকর’ অবস্থায় ছাত্রীসহ প্রধান শিক্ষক আটক

মতলব দক্ষিণে দুর্ধর্ষ ডাকাতি, স্বর্ণালঙ্কার ও মোবাইল সেটসহ নগদ টাকা লুট

আপডেট সময় : ১২:২৯:৫৮ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৩ সেপ্টেম্বর ২০২২
মোজাম্মেল প্রধান হাসিব : চাঁদপুরের মতলব দক্ষিণে নৈশপ্রহরীর হাত-পা বেঁধে ও মুখে স্কচটেপ লাগিয়ে পাঁচ ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে এক দুর্ধর্ষ ডাকাতি সংঘটিত হয়েছে।
গতকাল সোমবার গভীর রাতে উপজেলার নায়েরগাঁও বাজারে স্বর্ণালঙ্কার ও মোবাইল সেটসহ পাঁচটি ব্যবসা-প্রতিষ্ঠানে এ ডাকাতির ঘটনা ঘটে।
এতে নগদ টাকা, স্বর্ণালঙ্কার ও দামি মোবাইল সেটসহ প্রায় ২৬ লাখ টাকার মালামাল লুট করে নিয়ে যায় সংঘবদ্ধ ডাকাত দল।
খবর পেয়ে আজ মঙ্গলবার সকালে একাধিক পুলিশ কর্মকর্তা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। এ ঘটনায় মতলব দক্ষিণ থানায় একটি ডাকাতির মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।
থানা ও স্থানীয় সূত্র জানা যায়, গতকাল সোমবার দিবাগত রাত দুইটার দিকে ২০-২৫ জনের একটি সশস্ত্র ডাকাতদল নদীপথে স্পিডবোটযোগে নায়েরগাঁও বাজারে প্রবেশ করেন। ডাকাতেরা বাজারটির চার নৈশপ্রহরীকে একত্রিত করে বাজারের একটি দোকানের সামনে রশি দিয়ে হাত-পা বেঁধে মুখে স্কচটেপ লাগিয়ে দেন। এরপর তারা বাজারের রিংকু দাস, নিত্য গোপাল দাস, প্রদীপ চন্দ্র দাস ও কেশব চন্দ্র দাসের স্বর্ণের দোকান এবং মোঃ নুর উদ্দিনের মোবাইল সেটের দোকানের শাটারের তালা ভেঙে ভেতরে প্রবেশ করেন। এসময় ডাকাতদল রিংকু দাসের দোকান থেকে ১৫ ভরি স্বর্ণালঙ্কার ও নগদ ৪ লাখ টাকা, নিত্য গোপাল দাসের দোকান থেকে আড়াই ভরি স্বর্ণালঙ্কার ও নগদ ৮০ হাজার টাকা, প্রদীপ চন্দ্র দাসের দোকান থেকে ৪ ভরি রূপা ও কিছু স্বর্ণালঙ্কার, কেশব চন্দ্র দাসের দোকান থেকে নগদ ১৫ হাজার টাকা ও স্বর্ণালঙ্কার এবং নুর উদ্দিনের দোকান থেকে ২০টি দামি স্মাটফোন সেট লুট করে নিয়ে যায়।
থানা সূত্রে জানা গেছে, সোমবার ভোর রাতে খবর পেয়ে ওই দোকানিরা ঘটনাস্থলে এসে বিষয়টি পুলিশকে জানালে আজ মঙ্গলবার সকালে চাঁদপুরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মাইনুল ইসলাম, সহকারী পুলিশ সুপার মো. ইয়াছির আরাফাত ও মতলব দক্ষিণ থানার ওসি মোহাম্মদ মহিউদ্দিন মিয়া ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে ক্ষতিগ্রস্ত দোকানিদের খোঁজখবর নেন।
এবিষয়ে মতলব দক্ষিণ থানার ওসি মোহাম্মদ মহিউদ্দিন মিয়া জানান, এটি একটি রহস্যজনক ডাকাতি। পুরো ঘটনার তদন্ত চলছে। এ ব্যাপারে থানায় একটি ডাকাতির মামলা প্রক্রিয়াধীন।