ঢাকা ০৩:৪৭ অপরাহ্ন, শনিবার, ১৩ জুলাই ২০২৪, ২৯ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

মতলবে আবাসিক হোটেল থেকে প্রবাসীর লাশ উদ্ধার

মোজাম্মেল প্রধান হাসিব : চাঁদপুরের মতলব দক্ষিণে আবাসিক হোটেল থেকে হিমেল আহমেদ (২২) নামের এক যুবকের লাশ উদ্ধার করেছে মতলব দক্ষিণ থানা পুলিশ।

Model Hospital

রবিবার (১৮ সেপ্টেম্বর) দুপুর দেড়টার দিকে মতলব শহরের পুরনো ফেরিঘাট এলাকার আজমেরী আবাসিক হোটেলের ১৯ নম্বর কক্ষ থেকে তার লাশ উদ্ধার করা হয়। মৃত হিমেল জেলার মতলব উত্তর উপজেলার পূর্ব নাউরী গ্রামের খোকন প্রধানের ছেলে।

পুলিশ জানায়, গতকাল শনিবার রাত ৮ টার দিকে হিমেল হোটেলের ২য় তলার পূর্ব পাশের ১৯নং কেবিনে উঠেন। আজ দুপুর ১২ টার দিকে হোটেল বয় তার খোঁজ করতে গেলে ভিতর থেকে কক্ষের দরজা বন্ধ পায়। ডাকাডাকির পর কোনো সারা শব্দ না পাওয়ায় হোটেল বয় দ্রুত বিষয়টি হোটেলের ম্যানেজারকে জানায়। পরে ম্যানেজার ঘটনাটি পুলিশকে জানালে পুলিশ হোটেলের কক্ষ থেকে লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে।

মৃত হিমেলের বাবা খোকন প্রধান জানান, গত নয় মাস পূর্বে আমার ছেলেকে দুবাই পাঠিয়েছিলাম। আমরা তো জানি আমাদের ছেলে এখনো দুবাই আছে। কোনদিন বাংলাদেশে এসেছে তাও আমরা জানি না।

হোটেল ম্যানেজার বাবর আলী জানান, শনিবার রাত ৮টার দিকে ওই যুবক হোটেলের কক্ষে উঠে। অনেক বেলা হয়ে যাওয়ার পরও তাকে না দেখে সে তার খবর নিতে লোক পাঠায়।

উপ-পুলিশ পরিদর্শক মো. রফিকুল ইসলাম জনান, তাকে বমিরত বিছানায় উপুর হয়ে পড়ে আছে অবস্থায় পাই। এছাড়া মোবাইলে ছবি দেখে বোঝা গেছে বিদেশে সে গাড়ির ড্রাইভিং করতো।

মতলব দক্ষিণ থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোহাম্মদ মহিউদ্দিন মিয়া জানান, পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে লাশ উদ্ধার করেছে। ধারণা করা হচ্ছে সে বিষক্রিয়ায় মারা গেছে।

ট্যাগস :

বরযাত্রার সময় হাজির প্রথম স্ত্রী, বউ রেখে পালালেন বর

মতলবে আবাসিক হোটেল থেকে প্রবাসীর লাশ উদ্ধার

আপডেট সময় : ০১:৪৭:১৩ অপরাহ্ন, রবিবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২২

মোজাম্মেল প্রধান হাসিব : চাঁদপুরের মতলব দক্ষিণে আবাসিক হোটেল থেকে হিমেল আহমেদ (২২) নামের এক যুবকের লাশ উদ্ধার করেছে মতলব দক্ষিণ থানা পুলিশ।

Model Hospital

রবিবার (১৮ সেপ্টেম্বর) দুপুর দেড়টার দিকে মতলব শহরের পুরনো ফেরিঘাট এলাকার আজমেরী আবাসিক হোটেলের ১৯ নম্বর কক্ষ থেকে তার লাশ উদ্ধার করা হয়। মৃত হিমেল জেলার মতলব উত্তর উপজেলার পূর্ব নাউরী গ্রামের খোকন প্রধানের ছেলে।

পুলিশ জানায়, গতকাল শনিবার রাত ৮ টার দিকে হিমেল হোটেলের ২য় তলার পূর্ব পাশের ১৯নং কেবিনে উঠেন। আজ দুপুর ১২ টার দিকে হোটেল বয় তার খোঁজ করতে গেলে ভিতর থেকে কক্ষের দরজা বন্ধ পায়। ডাকাডাকির পর কোনো সারা শব্দ না পাওয়ায় হোটেল বয় দ্রুত বিষয়টি হোটেলের ম্যানেজারকে জানায়। পরে ম্যানেজার ঘটনাটি পুলিশকে জানালে পুলিশ হোটেলের কক্ষ থেকে লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে।

মৃত হিমেলের বাবা খোকন প্রধান জানান, গত নয় মাস পূর্বে আমার ছেলেকে দুবাই পাঠিয়েছিলাম। আমরা তো জানি আমাদের ছেলে এখনো দুবাই আছে। কোনদিন বাংলাদেশে এসেছে তাও আমরা জানি না।

হোটেল ম্যানেজার বাবর আলী জানান, শনিবার রাত ৮টার দিকে ওই যুবক হোটেলের কক্ষে উঠে। অনেক বেলা হয়ে যাওয়ার পরও তাকে না দেখে সে তার খবর নিতে লোক পাঠায়।

উপ-পুলিশ পরিদর্শক মো. রফিকুল ইসলাম জনান, তাকে বমিরত বিছানায় উপুর হয়ে পড়ে আছে অবস্থায় পাই। এছাড়া মোবাইলে ছবি দেখে বোঝা গেছে বিদেশে সে গাড়ির ড্রাইভিং করতো।

মতলব দক্ষিণ থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোহাম্মদ মহিউদ্দিন মিয়া জানান, পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে লাশ উদ্ধার করেছে। ধারণা করা হচ্ছে সে বিষক্রিয়ায় মারা গেছে।