ঢাকা ০৩:৩৬ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ০৪ মার্চ ২০২৪, ২০ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

মতলব উত্তরে পল্লী চিকিৎসক ও তার পরিবারের উপর অতর্কিত হামলা

মতলব উত্তর ব্যুরো : মতলব উত্তর উপজেলার ১২নং ফরাজীকান্দি ইউনিয়নের সরদারকান্দি গ্রামের পল্লী চিকিৎসক আলাউদ্দিন ও তার পরিবারের উপর আকস্মিক হামলা করেন লাল চাঁন।

Model Hospital

সোমবার রাত ১টা ৩০ মিনিটে একই গ্রামের মৃত সফর আলীর ছেলে লাল চাঁন আলাউদ্দিন এর বাড়ির গেইট লাথি মেরে ভেঙ্গে ভিতরে প্রবেশ করে ঘরের টিন লাথি মেরে খুলে ঘরের ভেতর প্রবেশ করে। কিছু বুঝে উঠার আগেই আলাউদ্দিন, তার স্ত্রী ও মেয়েকে লাঠি দিয়ে ক্রমাগত আঘাত করতে থাকে। পাশের বাড়ির লোকজন এলে তারাও হামলার স্বীকার হয়। এতে গুরুতর আহত হন আলাউদ্দিন, তার স্ত্রী, কন্যা এবং একজন প্রতিবেশী।

আলাউদ্দিন দেওয়ান জানান, হামলা চালিয়ে তার পরিবারের সবাইকে আহত করে ঘর থেকে নগদ দুই লক্ষ ষাট হাজার টাকা এবং একলক্ষ টাকা সমমূল্যের স্বর্ণালংকার হাতিয়ে নেয় লাল চাঁন।

মতলব উত্তর থানায় আলাউদ্দিন তার পরিবারের উপর আকস্মিক হামলা ও লুটপাতের ঘটনায় একটি অভিযোগ দায়ের করেন। পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়ার আশ্বাস দেন।

মৃত সফর আলী বেপারীর ছেলে লাল চাঁন বিগত দিনেও এরকম অসংখ্য ঘটনা ঘটিয়েছেন, লাল চাঁনের যন্ত্রনায় অতিষ্ঠ এলাকাবাসী লাল চাঁনের শাস্তির দাবি জানিয়েছেন।

এদিকে মানসিক ভারসাম্যহীন বলে লাল চাঁনের অনেক অপরাধমূলক কর্মকান্ড সরে যাচ্ছেন নিরবে। সচেতন মহল বলছেন, যদি লাল চাঁন পাগল হয় তবে তাকে পাবনা মানসিক হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হোক এবং যদি সুস্থ স্বাভাবিক হয় তবে তাকে আইনের আওতায় এনে শাস্তি দাবি জানান।

ট্যাগস :
জনপ্রিয় সংবাদ

চাঁদপুর শহরে আগুনে ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারের পাশে দাঁড়ালো অ্যাড. হুমায়ুন কবির সুমন

মতলব উত্তরে পল্লী চিকিৎসক ও তার পরিবারের উপর অতর্কিত হামলা

আপডেট সময় : ০২:২৬:৩৯ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ৭ ডিসেম্বর ২০২১

মতলব উত্তর ব্যুরো : মতলব উত্তর উপজেলার ১২নং ফরাজীকান্দি ইউনিয়নের সরদারকান্দি গ্রামের পল্লী চিকিৎসক আলাউদ্দিন ও তার পরিবারের উপর আকস্মিক হামলা করেন লাল চাঁন।

Model Hospital

সোমবার রাত ১টা ৩০ মিনিটে একই গ্রামের মৃত সফর আলীর ছেলে লাল চাঁন আলাউদ্দিন এর বাড়ির গেইট লাথি মেরে ভেঙ্গে ভিতরে প্রবেশ করে ঘরের টিন লাথি মেরে খুলে ঘরের ভেতর প্রবেশ করে। কিছু বুঝে উঠার আগেই আলাউদ্দিন, তার স্ত্রী ও মেয়েকে লাঠি দিয়ে ক্রমাগত আঘাত করতে থাকে। পাশের বাড়ির লোকজন এলে তারাও হামলার স্বীকার হয়। এতে গুরুতর আহত হন আলাউদ্দিন, তার স্ত্রী, কন্যা এবং একজন প্রতিবেশী।

আলাউদ্দিন দেওয়ান জানান, হামলা চালিয়ে তার পরিবারের সবাইকে আহত করে ঘর থেকে নগদ দুই লক্ষ ষাট হাজার টাকা এবং একলক্ষ টাকা সমমূল্যের স্বর্ণালংকার হাতিয়ে নেয় লাল চাঁন।

মতলব উত্তর থানায় আলাউদ্দিন তার পরিবারের উপর আকস্মিক হামলা ও লুটপাতের ঘটনায় একটি অভিযোগ দায়ের করেন। পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়ার আশ্বাস দেন।

মৃত সফর আলী বেপারীর ছেলে লাল চাঁন বিগত দিনেও এরকম অসংখ্য ঘটনা ঘটিয়েছেন, লাল চাঁনের যন্ত্রনায় অতিষ্ঠ এলাকাবাসী লাল চাঁনের শাস্তির দাবি জানিয়েছেন।

এদিকে মানসিক ভারসাম্যহীন বলে লাল চাঁনের অনেক অপরাধমূলক কর্মকান্ড সরে যাচ্ছেন নিরবে। সচেতন মহল বলছেন, যদি লাল চাঁন পাগল হয় তবে তাকে পাবনা মানসিক হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হোক এবং যদি সুস্থ স্বাভাবিক হয় তবে তাকে আইনের আওতায় এনে শাস্তি দাবি জানান।