ঢাকা ০১:১২ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ০১ মার্চ ২০২৪, ১৭ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

চাঁদপুর জেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে জাকির হোসেন পেয়েছেন আনারস প্রতীক

সাইদ হোসেন অপু চৌধুরী : চাঁদপুর জেলা পরিষদ নির্বাচনে অংশ নেওয়া চেয়ারম্যান, সাধারণ সদস্য ও সংরক্ষিত সদস্য পদের প্রার্থীদের মাঝে প্রতীক বরাদ্দ দেওয়া হয়েছে
সোমবার (২৬ সেপ্টেম্বর) জেলা প্রশাসনের সম্মেলন কক্ষে সকাল ৯ টা থেকে দুপুর ১ টা পর্যন্ত চাঁদপুর জেলা প্রশাসক ও জেলা রিটার্নি কর্মকর্তা কামরুল হাসানের উপস্থিতিতে ৪৯ জন প্রার্থীদের প্রতীক বরাদ্দ দেওযা হয়। তাঁকে সহযোগিতা করেন জেলা নির্বাচন কমিশনার ও সহকারী রিটার্নি কর্মকর্তা মোহাম্মদ তোফায়েল হোসেন এবং সদর উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মোঃ জামশেদ ইসলাম শিকদার।
চেয়ারম্যান প্রার্থী মোঃ জাকির হোসেন পেয়েছেন আনারস মার্কা। এদিন সকালে প্রার্থী নিজেদের কর্মী ও সমর্থকদের নিয়ে নির্বাচনি প্রতীক নিয়ে যান।
চাঁদপুর জেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান প্রার্থীদের মধ্যে আলোচনায় রয়েছেন বিশিষ্ট ব্যবসায়ী ও সমাজ সেবক মোঃ জাকির হোসেন
প্রধানীয়া। তিনি ইতিমধ্যেই ভোটার ও সাধারণ মানুষের মাঝে ব্যাক্তিগত ইমেজ তৈরি করে তুলেছেন। নির্বাচনী মাঠে সৎ ও যোগ্য প্রার্থী হিসাবে সাড়া জাগানো আলোড়ন সৃষ্টি করেছেন জাকির হোসেন।
নির্বাচনি প্রতীক পেয়ে এক প্রতিক্রিয়ায় মোঃ জাকির হোসেন বলেন, এই বছরে যোগ্য দেখে আপনাদের ভোটটি দিবেন। আমি জনবিচ্ছিন্ন নয়, এখানের সকল শ্রেনী পেশার সাধারন মানুষের দোয়া ও আন্তরিক ভালবাসা এবং তাদের আস্থা অর্জনের মাধ্যমেই নির্বাচনে বিজয়ী হয়ে একজন জনবান্ধব জনপ্রতিনিধি হিসেব জনগনের ন্যায্য অধিকার তাদের কাছে পৌঁছে দিতে চাই। আসন্ন জেলা পরিষদ নির্বাচনে জনপ্রতিনিধিরা তাদের পবিত্র আমানত মহামূল্যবান ভোট দিয়ে আমাকে চেয়ারম্যান নির্বাচিত করলে, জনগনের সেবক হিসেবে সততা ও দক্ষতার সাথে নিজের ব্যক্তিগত অভিজ্ঞতাকে কাজে লাগিয়ে সকল শ্রেণী পেশার মানুষের মৌলিক অধিকার আদায়ে সক্ষম হবো বলে আমি আশাবাদী। নির্বাচিত হলে সাধারন জনগনের গুরুদায়িত্ব সৎ ও নিষ্ঠার সাথে পালনের মাধ্যমে অসহায় গরিব মানুষের ভাগ্য উন্নয়নে আমি কাজ করে যাবো কথা দিচ্ছি।
উল্লেখ্য: আগামী ১৭ অক্টোবর এ ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে। জেলার সকল পর্যায়ের ১ হাজার ২শ’ ৬০জন জনপ্রতিনিধি এ নির্বাচনে ভোটাধিকার প্রয়োগ করবেন। নির্বাচনে মোট ভোটার ১২৬০ জন। এর মধ্যে পুরুষ ৯৭৪ জন ও নারী ২৯৯ জন। জেলার ৮ কেন্দ্রের মোট ১৬ টি বুথে ইভিএম এর মাধ্যমে ভোট প্রদান কার্যক্রম চলবে।
ট্যাগস :

কেক কাটার মধ্য দিয়ে “প্রিয় চাঁদপুর” এর ৮ম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালিত

চাঁদপুর জেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে জাকির হোসেন পেয়েছেন আনারস প্রতীক

আপডেট সময় : ০৩:২৪:৩০ অপরাহ্ন, সোমবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২২
সাইদ হোসেন অপু চৌধুরী : চাঁদপুর জেলা পরিষদ নির্বাচনে অংশ নেওয়া চেয়ারম্যান, সাধারণ সদস্য ও সংরক্ষিত সদস্য পদের প্রার্থীদের মাঝে প্রতীক বরাদ্দ দেওয়া হয়েছে
সোমবার (২৬ সেপ্টেম্বর) জেলা প্রশাসনের সম্মেলন কক্ষে সকাল ৯ টা থেকে দুপুর ১ টা পর্যন্ত চাঁদপুর জেলা প্রশাসক ও জেলা রিটার্নি কর্মকর্তা কামরুল হাসানের উপস্থিতিতে ৪৯ জন প্রার্থীদের প্রতীক বরাদ্দ দেওযা হয়। তাঁকে সহযোগিতা করেন জেলা নির্বাচন কমিশনার ও সহকারী রিটার্নি কর্মকর্তা মোহাম্মদ তোফায়েল হোসেন এবং সদর উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মোঃ জামশেদ ইসলাম শিকদার।
চেয়ারম্যান প্রার্থী মোঃ জাকির হোসেন পেয়েছেন আনারস মার্কা। এদিন সকালে প্রার্থী নিজেদের কর্মী ও সমর্থকদের নিয়ে নির্বাচনি প্রতীক নিয়ে যান।
চাঁদপুর জেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান প্রার্থীদের মধ্যে আলোচনায় রয়েছেন বিশিষ্ট ব্যবসায়ী ও সমাজ সেবক মোঃ জাকির হোসেন
প্রধানীয়া। তিনি ইতিমধ্যেই ভোটার ও সাধারণ মানুষের মাঝে ব্যাক্তিগত ইমেজ তৈরি করে তুলেছেন। নির্বাচনী মাঠে সৎ ও যোগ্য প্রার্থী হিসাবে সাড়া জাগানো আলোড়ন সৃষ্টি করেছেন জাকির হোসেন।
নির্বাচনি প্রতীক পেয়ে এক প্রতিক্রিয়ায় মোঃ জাকির হোসেন বলেন, এই বছরে যোগ্য দেখে আপনাদের ভোটটি দিবেন। আমি জনবিচ্ছিন্ন নয়, এখানের সকল শ্রেনী পেশার সাধারন মানুষের দোয়া ও আন্তরিক ভালবাসা এবং তাদের আস্থা অর্জনের মাধ্যমেই নির্বাচনে বিজয়ী হয়ে একজন জনবান্ধব জনপ্রতিনিধি হিসেব জনগনের ন্যায্য অধিকার তাদের কাছে পৌঁছে দিতে চাই। আসন্ন জেলা পরিষদ নির্বাচনে জনপ্রতিনিধিরা তাদের পবিত্র আমানত মহামূল্যবান ভোট দিয়ে আমাকে চেয়ারম্যান নির্বাচিত করলে, জনগনের সেবক হিসেবে সততা ও দক্ষতার সাথে নিজের ব্যক্তিগত অভিজ্ঞতাকে কাজে লাগিয়ে সকল শ্রেণী পেশার মানুষের মৌলিক অধিকার আদায়ে সক্ষম হবো বলে আমি আশাবাদী। নির্বাচিত হলে সাধারন জনগনের গুরুদায়িত্ব সৎ ও নিষ্ঠার সাথে পালনের মাধ্যমে অসহায় গরিব মানুষের ভাগ্য উন্নয়নে আমি কাজ করে যাবো কথা দিচ্ছি।
উল্লেখ্য: আগামী ১৭ অক্টোবর এ ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে। জেলার সকল পর্যায়ের ১ হাজার ২শ’ ৬০জন জনপ্রতিনিধি এ নির্বাচনে ভোটাধিকার প্রয়োগ করবেন। নির্বাচনে মোট ভোটার ১২৬০ জন। এর মধ্যে পুরুষ ৯৭৪ জন ও নারী ২৯৯ জন। জেলার ৮ কেন্দ্রের মোট ১৬ টি বুথে ইভিএম এর মাধ্যমে ভোট প্রদান কার্যক্রম চলবে।