ঢাকা ০১:৪০ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ০১ মার্চ ২০২৪, ১৭ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

শিক্ষা ব্যবস্থাকে এগিয়ে নেওয়ার জন্য প্রযুক্তির বিকল্প নেই; শিক্ষামন্ত্রী ডাঃ দীপু মনি

সজিব খান : চাঁদপুরে ডিজিটাল উদ্ভাবনী মেলার উদ্বোধন করা হয়েছে। রবিবার সকাল ১০টায় ভাসুয়ালী চাঁদপুর স্টেডিয়ামে মেলার প্রধান অতিথি হিসেবে উদ্বোধন করে শিক্ষামন্ত্রী ডাঃ দীপু মনি এমপি।

Model Hospital

এ সময় তিনি বলেন বঙ্গবন্ধু কণ্যা শেখ হাসিনা বাংলাদেশকে ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়েছেন। বঙ্গন্ধুর সোনার বাংলা বির্নিমানে ডিজিটাল বাংলাদেশের বিকল্প নেই। আজকের এ ডিজিটাল প্লাটফর্মে দাঁড়িয়ে যারা দেশের জন্য অকাতরে প্রাণ দিয়েছে, যাদের আত্মত্যাগের বিনিময়ে আজকের বাংলাদেশ, তাদেরকে শ্রদ্ধার সাথে স্মরন করছি। জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নাতী, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার পুত্র সজীব ওয়াজেদ জয়ের কারনেই বাংলাদেশ আজ ডিজিটালে রুপান্তরিত হয়েছে।

তিনি বলেন, সবার হাতে হাতে আজকে যে মোবাইল ফোন আছে, ল্যাপটপ আছে, এর মাধ্যমে দূর আলাপন হচ্ছে, এসব কিছুই ডিজিটালের কারনেই সম্ভাব হয়েছে। এ ডিজিটালের কারনে আমরা আজ সারা বিশ্বের সাথে সংযুক্তি থাকতে পারছি।

তিনি বলেন, জ্ঞান বিজ্ঞানে ডিজিটালের বিকল্প নেই। প্রযুক্তির মাধ্যমে জ্ঞান, বিজ্ঞান নিয়ে দেশে এগিয়ে যাচ্ছে। প্রযুক্তিকে ব্যবহার করে, তরুন প্রজন্ম নতুন উদ্ভাবনী তৌরি করছে। প্রযুক্তিকে নিয়ে সবাই কাজ করতে হবে। এর মাধ্যমে নতুন নতুন পরিসংখ্যাণ সর্ম্পকে সবাইকে জানতে হবে। আজকের শিক্ষা ব্যবস্থাকে এগিয়ে নেওয়ার জন্য প্রযুক্তির বিকল্প নেই। আমাদের শিক্ষার্থীদের আরো দক্ষ্য করে গড়ে তুলতে হবে। নতুন সম্ভাবনাকে কাজে লাগাতে হবে, বৈষম্যকে দূরে করতে হবে, কম্পিউটার, মেবাইল ডিভাইস নিয়ে প্রযুক্তিকে ব্যবহার করে কাজ করতে হবে। বঙ্গবন্ধু কণ্যা সারা দেশেই প্রযুক্তিকে ব্যবহার করে ডিজিটাল সেবা চালু করেছে।

তিনি বলেন, আগামী বছরের মধ্যে প্রতিটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ইন্টারনেট চালু করা হবে, শিক্ষা ব্যবস্থার সাফল্য নিয়েই কাজ করছি। যে কোন প্রযুক্তি ডিজিটাল ডিভাইস ব্যবহার করে মানব সেবার উন্নয়ন করতে হবে। নতুন নতুন ডিভাইসের মাধ্যমে নিজেকে পরিবর্তন করতে হবে। মানুষের অমঙ্গল হয়, এমন প্রযুক্তি ব্যবহার থেকে দূরে থাকতে হবে। ডিজিটালের কারনেই আজ আমাদের হাতের মুঠো সব কিছু চলে আসছে। ডিজিটাল প্রযুক্তি ব্যবহার করে বাংলাদেশ আজ বিশ্বের কাছে এগিয়ে যাচ্ছে, এসব কিছুই সম্ভাব হয়ে আমাদের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কারনেই। এ ডিজিটাল প্রযুক্তি ব্যবহার করে বৈষম্যকে দূরে করে আমাদের ভবিষ্যৎতের জন্য কাজ করতে পারলেই বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলার স্বপ্ন বাস্তবায়ন হবে।

চাঁদপুর জেলা প্রশাসক কামরুল হাসানের সভাপতিত্বে নাট্য ও সংবাদকর্মী এম আর ইসলাম বাবুর সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন পুলিশ সুপার মিলন মাহমুদ পিপিএম বার , জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি নাছির উদ্দিন আহম্মেদ, সাধারণ সম্পাদক আবু নঈম পাটওয়ারী দুলাল, চাঁদপুর পৌর মেয়র অ্যাডঃ জিল্লুর রহমান জুয়েল, চাঁদপুর সরকারি কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর অসিত বরণ দাশ, পুরানবাজার ডিগ্রি কলেজের অধ্যক্ষ রতন কুমার মজুমদার, চাঁদপুর প্রেসক্লাবের সভাপতি গিয়াস উদ্দিন মিলন প্রমুখ।

অনুষ্ঠানে প্রশাসনের বিভিন্ন দপ্তরের কর্মকর্তা, সুধিজন, রাজনীতিবিদ উপস্থিত ছিলেন। মেলায় মোট সরকারের বিভিন্ন দপ্তরের ৭০টি স্টল তাদের কর্মকান্ড জনসমুক্ষে তুলে ধরেন।

ট্যাগস :

কেক কাটার মধ্য দিয়ে “প্রিয় চাঁদপুর” এর ৮ম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালিত

শিক্ষা ব্যবস্থাকে এগিয়ে নেওয়ার জন্য প্রযুক্তির বিকল্প নেই; শিক্ষামন্ত্রী ডাঃ দীপু মনি

আপডেট সময় : ০২:১৪:৫১ অপরাহ্ন, রবিবার, ২০ নভেম্বর ২০২২

সজিব খান : চাঁদপুরে ডিজিটাল উদ্ভাবনী মেলার উদ্বোধন করা হয়েছে। রবিবার সকাল ১০টায় ভাসুয়ালী চাঁদপুর স্টেডিয়ামে মেলার প্রধান অতিথি হিসেবে উদ্বোধন করে শিক্ষামন্ত্রী ডাঃ দীপু মনি এমপি।

Model Hospital

এ সময় তিনি বলেন বঙ্গবন্ধু কণ্যা শেখ হাসিনা বাংলাদেশকে ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়েছেন। বঙ্গন্ধুর সোনার বাংলা বির্নিমানে ডিজিটাল বাংলাদেশের বিকল্প নেই। আজকের এ ডিজিটাল প্লাটফর্মে দাঁড়িয়ে যারা দেশের জন্য অকাতরে প্রাণ দিয়েছে, যাদের আত্মত্যাগের বিনিময়ে আজকের বাংলাদেশ, তাদেরকে শ্রদ্ধার সাথে স্মরন করছি। জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নাতী, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার পুত্র সজীব ওয়াজেদ জয়ের কারনেই বাংলাদেশ আজ ডিজিটালে রুপান্তরিত হয়েছে।

তিনি বলেন, সবার হাতে হাতে আজকে যে মোবাইল ফোন আছে, ল্যাপটপ আছে, এর মাধ্যমে দূর আলাপন হচ্ছে, এসব কিছুই ডিজিটালের কারনেই সম্ভাব হয়েছে। এ ডিজিটালের কারনে আমরা আজ সারা বিশ্বের সাথে সংযুক্তি থাকতে পারছি।

তিনি বলেন, জ্ঞান বিজ্ঞানে ডিজিটালের বিকল্প নেই। প্রযুক্তির মাধ্যমে জ্ঞান, বিজ্ঞান নিয়ে দেশে এগিয়ে যাচ্ছে। প্রযুক্তিকে ব্যবহার করে, তরুন প্রজন্ম নতুন উদ্ভাবনী তৌরি করছে। প্রযুক্তিকে নিয়ে সবাই কাজ করতে হবে। এর মাধ্যমে নতুন নতুন পরিসংখ্যাণ সর্ম্পকে সবাইকে জানতে হবে। আজকের শিক্ষা ব্যবস্থাকে এগিয়ে নেওয়ার জন্য প্রযুক্তির বিকল্প নেই। আমাদের শিক্ষার্থীদের আরো দক্ষ্য করে গড়ে তুলতে হবে। নতুন সম্ভাবনাকে কাজে লাগাতে হবে, বৈষম্যকে দূরে করতে হবে, কম্পিউটার, মেবাইল ডিভাইস নিয়ে প্রযুক্তিকে ব্যবহার করে কাজ করতে হবে। বঙ্গবন্ধু কণ্যা সারা দেশেই প্রযুক্তিকে ব্যবহার করে ডিজিটাল সেবা চালু করেছে।

তিনি বলেন, আগামী বছরের মধ্যে প্রতিটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ইন্টারনেট চালু করা হবে, শিক্ষা ব্যবস্থার সাফল্য নিয়েই কাজ করছি। যে কোন প্রযুক্তি ডিজিটাল ডিভাইস ব্যবহার করে মানব সেবার উন্নয়ন করতে হবে। নতুন নতুন ডিভাইসের মাধ্যমে নিজেকে পরিবর্তন করতে হবে। মানুষের অমঙ্গল হয়, এমন প্রযুক্তি ব্যবহার থেকে দূরে থাকতে হবে। ডিজিটালের কারনেই আজ আমাদের হাতের মুঠো সব কিছু চলে আসছে। ডিজিটাল প্রযুক্তি ব্যবহার করে বাংলাদেশ আজ বিশ্বের কাছে এগিয়ে যাচ্ছে, এসব কিছুই সম্ভাব হয়ে আমাদের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কারনেই। এ ডিজিটাল প্রযুক্তি ব্যবহার করে বৈষম্যকে দূরে করে আমাদের ভবিষ্যৎতের জন্য কাজ করতে পারলেই বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলার স্বপ্ন বাস্তবায়ন হবে।

চাঁদপুর জেলা প্রশাসক কামরুল হাসানের সভাপতিত্বে নাট্য ও সংবাদকর্মী এম আর ইসলাম বাবুর সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন পুলিশ সুপার মিলন মাহমুদ পিপিএম বার , জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি নাছির উদ্দিন আহম্মেদ, সাধারণ সম্পাদক আবু নঈম পাটওয়ারী দুলাল, চাঁদপুর পৌর মেয়র অ্যাডঃ জিল্লুর রহমান জুয়েল, চাঁদপুর সরকারি কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর অসিত বরণ দাশ, পুরানবাজার ডিগ্রি কলেজের অধ্যক্ষ রতন কুমার মজুমদার, চাঁদপুর প্রেসক্লাবের সভাপতি গিয়াস উদ্দিন মিলন প্রমুখ।

অনুষ্ঠানে প্রশাসনের বিভিন্ন দপ্তরের কর্মকর্তা, সুধিজন, রাজনীতিবিদ উপস্থিত ছিলেন। মেলায় মোট সরকারের বিভিন্ন দপ্তরের ৭০টি স্টল তাদের কর্মকান্ড জনসমুক্ষে তুলে ধরেন।