ঢাকা ০৬:৩১ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৮ জুন ২০২৪, ৪ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

চাঁদপুরে ফ্রিল্যান্সারদের নিয়ে সাকসেস আইটির কর্মশালা ও সম্মাননা প্রদান

ফ্রিল্যান্স আউটসোর্সিংয়ের উপর একদিনের বিশেষ সেমিনার ও কর্মশালার আয়োজন করেছে ফ্রিল্যান্সিং সাকসেস আইটি।
শুক্রবার (১৭ মে) চাঁদপুর শহরের বিষ্ণুদি ঢালি মসজিদ এলাকায় ফ্রিল্যান্সিং সাকসেস আইটির কার্যালয়ে এ কর্মশালা সম্পন্ন হয়।
দিনব্যাপী এ কর্মশালায় ফ্রিল্যান্স আউটসোসিং কি, কিভাবে কাজ শুরু করতে হয়, কোথায় ও কিভাবে কাজ পাওয়া যায়, কি পদক্ষেপ নেওয়া যাবে-কি যাবে না, কিভাবে কাজ করলে সফল হওয়া যাবে এসব বিষয়ের উপর বিস্তারিত আলোচনা করেন ফ্রিল্যান্সিং সাকসেস আইটির সিইও এবং মেন্টর মোঃ রাসেল হোসেন।
উক্ত সেমিনারে এক্টিভ ও সফল ১৫ জন শিক্ষার্থীকে সম্মাননা ক্রেস্ট তুলে দেন প্রতিষ্ঠানটির সিইও।
তিনি বলেন, এটি ফ্রিল্যান্সারদের জন্য একটি দুর্দান্ত ইভেন্ট হয়েছে। যেখানে তারা ফ্রিল্যান্সিংসহ আইটি সেক্টরের বিভিন্ন টিপস এবং কৌশল সম্পর্কে জানতে পেরেছে।
ভবিষ্যতে এমন ফ্রিল্যান্সার ইভেন্টের মাধ্যমে ফ্রিল্যান্সিং সেক্টরের আরও বেশি অগ্রগতি হবে বলে আমি মনে করি। ফ্রিল্যান্সারদের ফ্রিল্যান্সিং থেকে উদ্যোক্তা হওয়ার সম্ভাবনা অনেক বেশি, এর ফলে যেমন বৈদেশিক মুদ্রা অর্জিত হবে ঠিক তেমনি অনেক মানুষের কর্মসংস্থান হবে।
জানা যায়, সম্প্রতি বাংলাদেশের বিভিন্ন জেলার শত শত শিক্ষার্থীর ক্যারিয়ার গড়ার কারিগর হিসেবে কাজ করেছেন ফ্রিল্যান্সার রাসেল হোসেন। তারা এখন সফলতার সাথে ফ্রিল্যান্সিং করে তাদের সংসার এর খরচ বহন করতে সক্ষম হয়েছেন।
এছাড়াও তিনি গত বছরের আগস্টে চট্টগ্রাম বিভাগে সেরা মেন্টর হিসেবে ন্যাশনাল টেক এওয়ার্ড পেয়েছেন।
তার স্বপ্ন তিনি সারা বাংলাদেশে বেকারত্ব দূরীকরণে কাজ করে যাবেন।
ট্যাগস :
জনপ্রিয় সংবাদ

গরু জবাই করার সময় হার্ট অ্যাটাকে মৃ’ত্যু

চাঁদপুরে ফ্রিল্যান্সারদের নিয়ে সাকসেস আইটির কর্মশালা ও সম্মাননা প্রদান

আপডেট সময় : ০৯:১১:২২ অপরাহ্ন, শনিবার, ১৮ মে ২০২৪
ফ্রিল্যান্স আউটসোর্সিংয়ের উপর একদিনের বিশেষ সেমিনার ও কর্মশালার আয়োজন করেছে ফ্রিল্যান্সিং সাকসেস আইটি।
শুক্রবার (১৭ মে) চাঁদপুর শহরের বিষ্ণুদি ঢালি মসজিদ এলাকায় ফ্রিল্যান্সিং সাকসেস আইটির কার্যালয়ে এ কর্মশালা সম্পন্ন হয়।
দিনব্যাপী এ কর্মশালায় ফ্রিল্যান্স আউটসোসিং কি, কিভাবে কাজ শুরু করতে হয়, কোথায় ও কিভাবে কাজ পাওয়া যায়, কি পদক্ষেপ নেওয়া যাবে-কি যাবে না, কিভাবে কাজ করলে সফল হওয়া যাবে এসব বিষয়ের উপর বিস্তারিত আলোচনা করেন ফ্রিল্যান্সিং সাকসেস আইটির সিইও এবং মেন্টর মোঃ রাসেল হোসেন।
উক্ত সেমিনারে এক্টিভ ও সফল ১৫ জন শিক্ষার্থীকে সম্মাননা ক্রেস্ট তুলে দেন প্রতিষ্ঠানটির সিইও।
তিনি বলেন, এটি ফ্রিল্যান্সারদের জন্য একটি দুর্দান্ত ইভেন্ট হয়েছে। যেখানে তারা ফ্রিল্যান্সিংসহ আইটি সেক্টরের বিভিন্ন টিপস এবং কৌশল সম্পর্কে জানতে পেরেছে।
ভবিষ্যতে এমন ফ্রিল্যান্সার ইভেন্টের মাধ্যমে ফ্রিল্যান্সিং সেক্টরের আরও বেশি অগ্রগতি হবে বলে আমি মনে করি। ফ্রিল্যান্সারদের ফ্রিল্যান্সিং থেকে উদ্যোক্তা হওয়ার সম্ভাবনা অনেক বেশি, এর ফলে যেমন বৈদেশিক মুদ্রা অর্জিত হবে ঠিক তেমনি অনেক মানুষের কর্মসংস্থান হবে।
জানা যায়, সম্প্রতি বাংলাদেশের বিভিন্ন জেলার শত শত শিক্ষার্থীর ক্যারিয়ার গড়ার কারিগর হিসেবে কাজ করেছেন ফ্রিল্যান্সার রাসেল হোসেন। তারা এখন সফলতার সাথে ফ্রিল্যান্সিং করে তাদের সংসার এর খরচ বহন করতে সক্ষম হয়েছেন।
এছাড়াও তিনি গত বছরের আগস্টে চট্টগ্রাম বিভাগে সেরা মেন্টর হিসেবে ন্যাশনাল টেক এওয়ার্ড পেয়েছেন।
তার স্বপ্ন তিনি সারা বাংলাদেশে বেকারত্ব দূরীকরণে কাজ করে যাবেন।