ঢাকা ০২:৫৭ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ২০ মে ২০২৪, ৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ফরিদগঞ্জে বিদ্যালয় থেকে ফেরার পথে ধর্ষনের শিকার কিশোরী!

স্টাফ রিপোর্টার : চাঁদপুর ফরিদগঞ্জে বিদ্যালয় থেকে বাড়ি ফেরার পথে দশম শ্রেণী পড়ুয়া এক স্কুল শিক্ষার্থীকে জোরপূর্বক তুলে নিয়ে একটি বসত ঘরে বখাটে যুবলীগ নেতা কর্তৃক ধর্ষনের অভিযোগ পাওয়া গেছে।

Model Hospital

৯ জানুয়ারী রোববার দুপুরে উপজেলার ৫নং ইউনিয়নের ভোটাল গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

থানায় লিখিত অভিযোগ দিয়ে ধর্ষনের বিচার প্রার্থনা করেছেন ধর্ষনের শিকার ওই শিক্ষার্থীর মা। অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, উপজেলার ৬নং গুপ্টি ইউনিয়নের সাইসাঙ্গা গ্রামের মিজি বাড়ির হারুনের ছেলে যুবলীগ নেতা ও সাবেক কিশোর গ্যাংয়ের মুল হোতা ও অভিযুক্ত মাদকাসক্ত শিমুল মিজি (২৪), তার দুই বন্ধু ইজাজ হোসেন (২৩) ও সাব্বির হোসেন (২৪) ওইদিন আষ্টা মহামায়া পাঠশালা উচ্চ বিদ্যালয় থেকে বাড়ি ফেরার পথে শিক্ষার্থীকে একা পেয়ে জোরপূর্বক তাকে ধরে নিয়ে ভোটাল গ্রামের লিপি বেগমের বাড়িতে নিয়ে যায়।

পরে লিপি বেগমের সহায়তায় বখাটে যুবক শিমুল ওই শিক্ষার্থীকে জোরপূর্বক ধর্ষন করে পালিয়ে যায়। মেয়েটি সেখান থেকে বাড়ি ফিরে তার মা ও পরিবারের লোকজনকে বিষয়টি জানায়। পরে, মেয়েটির মা ফরিদগঞ্জ থানায় শিমুল, ইজাজ, সাব্বির ও লিপিকে অভিযুক্ত করে বিচার প্রার্থনা করেন।

বিষয়টি নিয়ে ফরিদগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ শহীদ হোসেন জানান, ভিক্টিমের মা বাদী হয়ে থানায় লিখিত অভিযোগ করেছেন। অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

ট্যাগস :

মতলব উত্তর উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে নির্বাচিতদের গেজেট প্রকাশ

ফরিদগঞ্জে বিদ্যালয় থেকে ফেরার পথে ধর্ষনের শিকার কিশোরী!

আপডেট সময় : ০৪:৪৪:৫৮ অপরাহ্ন, রবিবার, ৯ জানুয়ারী ২০২২

স্টাফ রিপোর্টার : চাঁদপুর ফরিদগঞ্জে বিদ্যালয় থেকে বাড়ি ফেরার পথে দশম শ্রেণী পড়ুয়া এক স্কুল শিক্ষার্থীকে জোরপূর্বক তুলে নিয়ে একটি বসত ঘরে বখাটে যুবলীগ নেতা কর্তৃক ধর্ষনের অভিযোগ পাওয়া গেছে।

Model Hospital

৯ জানুয়ারী রোববার দুপুরে উপজেলার ৫নং ইউনিয়নের ভোটাল গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

থানায় লিখিত অভিযোগ দিয়ে ধর্ষনের বিচার প্রার্থনা করেছেন ধর্ষনের শিকার ওই শিক্ষার্থীর মা। অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, উপজেলার ৬নং গুপ্টি ইউনিয়নের সাইসাঙ্গা গ্রামের মিজি বাড়ির হারুনের ছেলে যুবলীগ নেতা ও সাবেক কিশোর গ্যাংয়ের মুল হোতা ও অভিযুক্ত মাদকাসক্ত শিমুল মিজি (২৪), তার দুই বন্ধু ইজাজ হোসেন (২৩) ও সাব্বির হোসেন (২৪) ওইদিন আষ্টা মহামায়া পাঠশালা উচ্চ বিদ্যালয় থেকে বাড়ি ফেরার পথে শিক্ষার্থীকে একা পেয়ে জোরপূর্বক তাকে ধরে নিয়ে ভোটাল গ্রামের লিপি বেগমের বাড়িতে নিয়ে যায়।

পরে লিপি বেগমের সহায়তায় বখাটে যুবক শিমুল ওই শিক্ষার্থীকে জোরপূর্বক ধর্ষন করে পালিয়ে যায়। মেয়েটি সেখান থেকে বাড়ি ফিরে তার মা ও পরিবারের লোকজনকে বিষয়টি জানায়। পরে, মেয়েটির মা ফরিদগঞ্জ থানায় শিমুল, ইজাজ, সাব্বির ও লিপিকে অভিযুক্ত করে বিচার প্রার্থনা করেন।

বিষয়টি নিয়ে ফরিদগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ শহীদ হোসেন জানান, ভিক্টিমের মা বাদী হয়ে থানায় লিখিত অভিযোগ করেছেন। অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।