ঢাকা ১১:১৯ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ১৪ জুন ২০২৪, ৩১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

বিয়ের প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় প্রবাসী পরিবারকে মিথ্যা মামলায় হয়রানির অভিযোগ

নিজস্ব প্রতিনিধি : চাঁদপুর ফরিদগঞ্জ ৪ নং সুবিদপুর ইউনিয়নে বাসিন্দা বাহারাইন প্রবাসী আরিফ বেপারীকে বিয়ের প্রস্তাব দিলে রাজি না হওয়ায় মিথ্যা মামলা দিয়ে হয়রানি করছে বলে অভিযোগ উঠেছে।

Model Hospital

মোবাইল ফোনে যোগাযোগ তারপর বিয়ের প্রস্তাব তাতে রাজি না হওয়ায় প্রবাসী ও তার মা,বোন ও ভাইয়ের বিরুদ্ধে আদালতে মামলাটি দায়ের করেন।

ফরিদগঞ্জ ৯ নং গোবিন্দপুর ইউনিয়নের ধানুয়ার বাসিন্দা নুর ইসলামের মেয়ে ছলনাময়ী বিউটি বেগম বাদী হয়ে মামলাটি দায়ের করেন।

প্রবাসীর মা ও ভাই অভিযোগ করে বলেন, বিউটি বেগমের খালার বাড়িতে এসে মোবাইল নাম্বার সংগ্রহ করে প্রবাসী আরিফ বেপারীর সাথে যোগাযোগ করে। বেশ কয়েক মাস মোবাইল ফোনে যোগাযোগ করে অবশেষে তাকে বিয়ের প্রস্তাব দেয়। কিন্তু প্রবাসী আরিফ বেপারীর ২৫ বছর ও ছলনামহি বিউটি বেগমের ৪০ বছর, বয়সের ব্যবধান বেশি হওয়ার পরিবারের কেউ এই বিয়ের প্রস্তাবে রাজি হয়নি। এছাড়া এই প্রতারক বিউটি বেগম অনেক প্রবাসীকে প্রেমের ফাঁদে ফেলে তাদের কাছ থেকে লক্ষ লক্ষ টাকা হাতিয়ে নিয়েছে তার বিরুদ্ধে রয়েছে অনেক প্রতারণা অভিযোগ।

বিয়ের প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় বিউটি বেগম টাকা পাবে বলে মিথ্যা অভিযোগ এনে ফরিদগঞ্জ থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেন। অভিযোগটি ফরিদগঞ্জ থানার এসআই বরকত তদন্ত করে এর সত্যতা পায়নি। তার পরেও বিউটি বেগম আদালতের শরণাপন্ন হয়ে পুনরায় একটি মিথ্যা মামলা দায়ের করেন। মামলাটি পিবিআইকে তদন্তভার দেন আদালত।

প্রবাসী আরিফ বেপারী বিদেশে থাকা সত্ত্বেও তাকে প্রধান আসামি করে মামলা দায়ের করেন।
ছলনাময়ী প্রতারক বিউটি বেগম ফোন করে বিয়েতে রাজি হওয়ার জন্য চাপ প্রয়োগ করেন। আর না হলে মিথ্যা মামলা দিয়ে হয়রানী সহ প্রাণনাশের হুমকি দেয়।

এই মিথ্যা মামলা প্রত্যাহারসহ এই প্রতারক বিউটি বেগম এর হাত থেকে রক্ষা পেতে প্রশাসনের দৃষ্টি কামনা করেন ভুক্তভোগী পরিবার।
তবে এই অভিযোগের বিষয়ে বিউটি বেগমের মুঠোফোনের ফোন করলে রিসিভ না করায় তার বক্তব্য নেওয়া সম্ভব হয়নি।

ট্যাগস :
জনপ্রিয় সংবাদ

চাঁদপুরে লঞ্চে শুরু হয়েছে নাড়ির টানে বাড়ি ফেরা

বিয়ের প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় প্রবাসী পরিবারকে মিথ্যা মামলায় হয়রানির অভিযোগ

আপডেট সময় : ১২:৪০:৩৮ অপরাহ্ন, সোমবার, ৩১ জানুয়ারী ২০২২

নিজস্ব প্রতিনিধি : চাঁদপুর ফরিদগঞ্জ ৪ নং সুবিদপুর ইউনিয়নে বাসিন্দা বাহারাইন প্রবাসী আরিফ বেপারীকে বিয়ের প্রস্তাব দিলে রাজি না হওয়ায় মিথ্যা মামলা দিয়ে হয়রানি করছে বলে অভিযোগ উঠেছে।

Model Hospital

মোবাইল ফোনে যোগাযোগ তারপর বিয়ের প্রস্তাব তাতে রাজি না হওয়ায় প্রবাসী ও তার মা,বোন ও ভাইয়ের বিরুদ্ধে আদালতে মামলাটি দায়ের করেন।

ফরিদগঞ্জ ৯ নং গোবিন্দপুর ইউনিয়নের ধানুয়ার বাসিন্দা নুর ইসলামের মেয়ে ছলনাময়ী বিউটি বেগম বাদী হয়ে মামলাটি দায়ের করেন।

প্রবাসীর মা ও ভাই অভিযোগ করে বলেন, বিউটি বেগমের খালার বাড়িতে এসে মোবাইল নাম্বার সংগ্রহ করে প্রবাসী আরিফ বেপারীর সাথে যোগাযোগ করে। বেশ কয়েক মাস মোবাইল ফোনে যোগাযোগ করে অবশেষে তাকে বিয়ের প্রস্তাব দেয়। কিন্তু প্রবাসী আরিফ বেপারীর ২৫ বছর ও ছলনামহি বিউটি বেগমের ৪০ বছর, বয়সের ব্যবধান বেশি হওয়ার পরিবারের কেউ এই বিয়ের প্রস্তাবে রাজি হয়নি। এছাড়া এই প্রতারক বিউটি বেগম অনেক প্রবাসীকে প্রেমের ফাঁদে ফেলে তাদের কাছ থেকে লক্ষ লক্ষ টাকা হাতিয়ে নিয়েছে তার বিরুদ্ধে রয়েছে অনেক প্রতারণা অভিযোগ।

বিয়ের প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় বিউটি বেগম টাকা পাবে বলে মিথ্যা অভিযোগ এনে ফরিদগঞ্জ থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেন। অভিযোগটি ফরিদগঞ্জ থানার এসআই বরকত তদন্ত করে এর সত্যতা পায়নি। তার পরেও বিউটি বেগম আদালতের শরণাপন্ন হয়ে পুনরায় একটি মিথ্যা মামলা দায়ের করেন। মামলাটি পিবিআইকে তদন্তভার দেন আদালত।

প্রবাসী আরিফ বেপারী বিদেশে থাকা সত্ত্বেও তাকে প্রধান আসামি করে মামলা দায়ের করেন।
ছলনাময়ী প্রতারক বিউটি বেগম ফোন করে বিয়েতে রাজি হওয়ার জন্য চাপ প্রয়োগ করেন। আর না হলে মিথ্যা মামলা দিয়ে হয়রানী সহ প্রাণনাশের হুমকি দেয়।

এই মিথ্যা মামলা প্রত্যাহারসহ এই প্রতারক বিউটি বেগম এর হাত থেকে রক্ষা পেতে প্রশাসনের দৃষ্টি কামনা করেন ভুক্তভোগী পরিবার।
তবে এই অভিযোগের বিষয়ে বিউটি বেগমের মুঠোফোনের ফোন করলে রিসিভ না করায় তার বক্তব্য নেওয়া সম্ভব হয়নি।